সর্বশেষ আপডেট : ৩৩ মিনিট ২৭ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা পেল ভারতের পাঁচ ‘বাবা’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতের মধ্যপ্রদেশে হিন্দু ধর্মীয় ‘পাঁচজন বাবা’কে (যারা ধর্মীয় গুরু হিসেবে পরিচিত) প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা দিয়েছে রাজ্যের ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার। দেশটির বিরোধীদল কংগ্রেস রাজ্য সরকারের এ পদক্ষেপের সমালোচনা করে বলছে, নির্বাচনী বছরে এসে ধর্মীয় আবেগকে কাজে লাগিয়ে ভোট টানার রাজনীতি করছে বিজেপি।

মধ্যপ্রদেশের প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা পাওয়া পাঁচ ‘বাবা’ হলেন, কম্পিউটার বাবা, নরমাদ আনন্দ মহারাজ, হরিহর আনন্দ মহারাজ, ভাইয়ু মহারাজ ও পণ্ডিত যোগেন্দ্র মহান্ত।

রাজ্য সরকার বলছে, নর্মদা নদী রক্ষায় গঠিত একটি কমিটিতে এই পাঁচ ধর্মীয় গুরুকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। গত মাসে ওই কমিটিতে জায়গা পাওয়া এই পাঁচ বাবা প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা পাবেন।

তবে দেশটিতে ধর্মীয় সাধক বা গুরুকে প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা দেয়া নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক শুরু হয়েছে। বিরোধী দল কংগ্রেসের বিজেপির বিরুদ্ধে ধর্মের ভিত্তিতে ভোটের রাজনীতির অভিযোগ করেছে। তবে এই বিতর্কের জবাব দিয়েছেন প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা পাওয়া কম্পিউটার বাবা।

তিনি বলেন, এতে দোষের কী আছে? আমাদের কাজের জন্যই আমরা পুরস্কৃত হয়েছি। এর আগে এই কম্পিউটার বাবা নরমান্দ নদী রক্ষা কার্যক্রমে ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ এনে ভক্তদের নিয়ে বিশাল রথ যাত্রা আয়োজনের ঘোষণা দিয়েছিলেন।

নয়াদিল্লিতে কংগ্রেস নেতা রাজ বাব্বার বলেন, নির্বাচনে জয়ী হওয়ার জন্যই তারা (বিজেপি) এই বাবাদের বেছে নিয়েছে।

রাজ্যের কংগ্রেস নেতা পঙ্কজ চতুর্বেদি বলেছেন, নিজের অপকর্ম আড়াল করার অংশ হিসেবে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী এই অপকৌশলের আশ্রয় নিয়েছেন। তবে কংগ্রেসের এই নেতা নরমান্দ নদী রক্ষা কার্যক্রমের ব্যাপারে কথা বলতে রাজি হননি।

সূত্র : এনডিটিভি, টাইমস অব ইন্ডিয়া।




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: