সর্বশেষ আপডেট : ২১ মিনিট ৩৫ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

নগদ জমার ১০ হাজার কোটি টাকা ফেরত পাবে ব্যাংকগুলো

নিউজ ডেস্ক:: ব্যাংকগুলোর নগদ জমা সংরক্ষণ (ক্যাশ রিজার্ভ রেশিও বা সিআরআর) সাড়ে ৬ শতাংশ থেকে এক শতাংশ কমিয়ে সাড়ে ৫ শতাংশ করার সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। রোববার রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে বেসরকারি ব্যাংক উদ্যোক্তাদের সংগঠন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকসের (বিএবি) বৈঠককালে এ সিদ্ধান্ত হয়।

বৈঠকে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে করিব, ডেপুটি গভর্নর এস এম মনিরুজ্জামান, বাংলাদেশ ব্যাংকের উপদেষ্টা এস কে সুর চৌধুরী, বিএবি সভাপতি ও এক্সিম ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম মজুমদার, আইএফআইসি ব্যাংকের চেয়ারম্যান শিল্পপতি সালমান এফ রহমান, বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর প্রধান নির্বাহীদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকার্স বাংলাদেশ-এবিবি চেয়ারম্যান সৈয়দ মাহবুবুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, সুদের হার কমানোর চেষ্টা করছি। এরই অংশ হিসেবে বেসরকারি ব্যাংকগুলোতে সরকারি প্রতিষ্ঠানের আমানত ৫০ শতাংশ রাখা হবে। ইতোমধ্যে অর্থমন্ত্রণালয় এ ব্যাপারে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। আর আজকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বাংলাদেশ ব্যাংকে বেসরকারি ব্যাংকগুলোর জমা রাখা সিআরআর এর ১ শতাংশ টাকা ব্যাংকগুলো ব্যবহার করতে পারবে। এর ফলে ১০ হাজার কোটি টাকার মতো বেসরকারি ব্যাংকগুলোর হাতে চলে আসবে। এতে তারল্য সংকট কমে গেলে সুদের হারও কমে যাবে। চলতি বছরের ডিসেম্বর পর্যন্ত সিআরআর সাড়ে পাঁচ শতাংশ বহাল থাকবে। তবে আগামী জুন মাসে সিআরআর বিষয়ে আবারও পর্যালোচনা করা হবে।

এত পরিমাণ টাকা বেসরকারি ব্যাংকগুলোর কাছে দেয়া হলে মূল্যস্ফীতি বাড়বে কিনা জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী সে আশঙ্কা উড়িয়ে দেন। তিনি বলেন, মূল্যস্ফীতি বাড়বে না, কোনোভাবেই বাড়বে না। নীতিমালা অনুযায়ী, এতদিন সরকারি আমানতের মাত্র ২৫ শতাংশ বেসরকারি ব্যাংকে রাখার বিধান ছিল। আর আমানতের ৭৫ শতাংশ রাখা হয় রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোতে। এখন থেকে সরকারি আমানতের ৫০ শতাংশ পাবে বেসরকারি বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো। বিএবি’র সভাপতি নজরুল ইসলাম মজুমদার বলেন, সিআরআর এর টাকা পেলে তারল্য সংকট কিছুটা কমে যাবে। যৌক্তিক সময়ে সুদহারও সিঙ্গেল ডিজিটে (এক অংকে) কমে আসবে বলে জানান তিনি।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্দেশনা অনুযায়ী, ঝুঁকি মোকাবিলায় বেসরকারি ব্যাংকগুলো বাংলাদেশ ব্যাংকে মোট তহবিলের সাড়ে ৬ শতাংশ সিআরআর হিসেবে জমা রাখে। নতুন এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হলে ব্যাংকগুলো সিআরআর থেকে এক শতাংশ অর্থ ব্যবহার করতে পারবে।


নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: