সর্বশেষ আপডেট : ১১ মিনিট ২৪ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

টানা তিন সপ্তাহ পতনে শেয়ারবাজার

নিউজ ডেস্ক:: দরপতনের বৃত্ত থেকে বের হতে পারেনি দেশের শেয়ারবাজার। শেষ সপ্তাহেও (৪ থেকে ৮ মার্চ) প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মূল্য সূচক ও লেনদেন কমেছে। এর মধ্যে টানা তিন সপ্তাহ দরপতনের মধ্যে থাকলো শেয়ারবাজার।

শেষ সপ্তাহজুড়ে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স কমেছে ৪২ দশমিক ৮৫ পয়েন্ট বা দশমিক ৭৩ শতাংশ। আগের সপ্তাহে এ সূচকটি কমে ৩৬ দশমিক ১৫ পয়েন্ট বা দশমিক ৬১ শতাংশ। তার আগের সপ্তাহে কমে ১৪৩ দশমিক ২২ পয়েন্ট বা ২ দশমিক ৩৭ শতাংশ। অর্থাৎ টানা তিন সপ্তাহের পতনে ডিএসইএক্স কমেছে ২২২ পয়েন্টের ওপরে।

অপর দুটি সূচকের মধ্যে শেষ সপ্তাহে ডিএসই-৩০ কমেছে ২৫ দশমিক ১৪ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ১৬ শতাংশ। আগের সপ্তাহে এ সূচকটি কমে ১ দশমিক ২৯ পয়েন্ট বা দশমিক শূন্য ৬ শতাংশ। তার আগের সপ্তাহে কমে ৬০ দশমিক ৬৭ পয়েন্ট বা ২ দশমিক ৭২ শতাংশ।

তবে ডিএসই শরিয়াহ সূচক আগের সপ্তাহের তুলনায় শেষ সপ্তাহে কিছুটা বেড়েছে। শেষ সপ্তাহে এ সূচকটি বেড়েছে দশমিক ৫৬ পয়েন্ট বা দশমিক শূন্য ৪ চার শতাংশ। অবশ্য আগের দুই সপ্তাহে এ সূচকটিরও পতন হয়। আগের সপ্তাহে সূচকটি কমে ৩ দশমিক শূন্য ৭ পয়েন্ট বা দশমিক ২২ শতাংশ। তার আগের সপ্তাহে কমে ২৯ দশমিক ৯২ পয়েন্ট বা ২ দশমিক ১২ শতাংশ।

শেষ সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩৩৯টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের মধ্যে ১৫৪টির দাম আগের সপ্তাহের তুলনায় বেড়েছে। অপরদিকে দাম কমেছে ১৪৯টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৬টির দাম।

মূল্য সূচকের পতনের পাশাপাশি শেষ সপ্তাহে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। সপ্তাহের প্রতি কার্যদিবসে গড়ে লেনদেন হয়েছে ৩৭১ কোটি ৯০ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে প্রতিদিন গড়ে লেনদেন হয় ৩৭৩ কোটি ৫৮ লাখ টাকা। অর্থাৎ প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন কমেছে ১ কোটি ৬৮ লাখ টাকা বা দশমিক ৪৫ শতাংশ।

গড় লেনদেনের পাশাপাশি মোট লেনদেনের পরিমাণও কমেছে। সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৮৫৯ কোটি ৫২ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয় ১ হাজার ৮৬৭ কোটি ৯৪ লাখ টাকা। সে হিসাবে মোট লেনদেন কমেছে ৮ কোটি ৪২ লাখ টাকা।

গত সপ্তাহে মোট লেনদেনের ৯০ দশমিক ৪৮ শতাংশই ছিল ‘এ’ ক্যাটাগরিভুক্ত কোম্পানির শেয়ারের দখলে। এছাড়া বাকি ৭ দশমিক ৭৮ শতাংশ ‘বি’ ক্যাটাগরিভুক্ত এবং ১ দশমিক ৭৪ শতাংশ ‘জেড’ ক্যাটাগরিভুক্ত কোম্পানির শেয়ারের।

এদিকে গত সপ্তাহে মূল্য সূচকের পাশাপাশি ডিএসইর বাজার মূলধনের পরিমাণও কমেছে। সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে ডিএসইর বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছে ৪ লাখ ৬ হাজার ৩৪৪ কোটি টাকা। যা তার আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল ৪ লাখ ৭ হাজার ৮৪৬ কোটি টাকা।

সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে টাকার অঙ্কে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে মুন্নু সিরামিকের শেয়ার। কোম্পানিটির ৫৬ কোটি ৪২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যা সপ্তাহজুড়ে হওয়া মোট লেনদেনের ৩ দশমিক শূন্য ৩ শতাংশ।

দ্বিতীয় স্থানে থাকা ন্যাশনাল টিউবসের শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৪২ কোটি ৫৯ লাখ টাকা, যা সপ্তাহের মোট লেনদেনের ২ দশমিক ২৯ শতাংশ। ৩৯ কোটি ৯৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ইবনে সিনা ফার্মাসিটিক্যাল।

লেনদেনে এরপর রয়েছে- ইফাদ অটোস, নাহি অ্যালুমিনিয়াম, গ্রামীণফোন, অ্যাপেক্স ফুডস, আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক, স্কয়ার ফার্মাসিটিক্যাল এবং ইউনিক হোটেল।




নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৭

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: মকিস মনসুর আহমদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: কে এ রহিম সাবলু, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
অফিস: ৯/আই, ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট।
ফোন: ০৮২১-৭২৬৫২৭, মোবাইল: ০১৭১৭৬৮১২১৪ (নিউজ) ০১৭১২৮৮৬৫০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: