সর্বশেষ আপডেট : ১৯ মিনিট ৫ সেকেন্ড আগে
বুধবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

খালেদা জিয়া ভূতের সরকার প্রতিষ্ঠার ষড়যন্ত্র করছেন : ইনু

নিউজ ডেস্ক:: বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচনে না যাওয়ার ঘোষণা দিয়ে ভূতের সরকার প্রতিষ্ঠার ষড়যন্ত্র করছেন বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে গত রোববার (১২ নভেম্বর) রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে খালেদা জিয়ার দেয়া ভাষণের প্রতিক্রিয়ায় তথ্যমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

 

তিনি বলেন, ‘উনি (খালেদা জিয়া) পরিষ্কার বলেছেন শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন করবেন না। তিনি কখনও সহায়ক সরকারের কথা বলেছেন, কখনও নিরপেক্ষ সরকারের কথা বলেছেন, কখনও নির্দলীয় সরকারের কথা বলেছেন। শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণার মধ্যে দিয়ে তিনি কার্যত ভূতের সরকারের অধীনে নির্বাচন করার কথা বলেছেন।’

তিনি আরও বলেন, শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণা হচ্ছে সংবিধানের অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণা। এরমানে হচ্ছে উনি (খালেদা জিয়া) দেশকে সংর্ঘষের দিকে, অস্বাভাবিক পথে ঠেলে দেয়ার চক্রান্তের জাল বুনলেন।’

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘উনি (বেগম জিয়া) সংবিধানের অধীনে নির্বাচন চান না, উনি কার্যত ভূতের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে চান। যা বাংলাদেশের রাজনীতির জন্য অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক হবে।’

তিনি বলেন, ‘খালেদা জিয়া বিদেশ থেকে আসার পর আশা করেছিলাম সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের জনসভায় আগুন সন্ত্রাসের জন্য, মানুষ পোড়ানোর জন্য এবং বিভিন্ন অপরাধীদের রাজনৈতিক আশ্রয় দেয়ার জন্য জাতির কাছে মাফ চাইবেন। রাজাকার, জঙ্গি, যুদ্ধপরাধী এবং জামায়াতকে পরিহার করার ঘোষণাসহ আগামী নির্বাচন নিয়ে আরও গঠনমূলক বক্তব্য দেবেন। তবে সে আশা পূরণ হয়নি। তিনি জাতির কাছে মাফ চাননি। রাজাকার, জঙ্গিদের পরিহারের ঘোষণাও দেননি। উল্টো তিনি নিজের, পুত্র ও পরিবার পরিজনসহ প্রকাশ্যে সামরিক শাসন, সামরিকতন্ত্র, জঙ্গি-সন্ত্রাস, টাকা পাচারকারীদের পক্ষে সাফাই গেয়েছেন। এটা অত্যন্ত দুঃখজনক।’

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের ভাষণ যদি বিশ্লেষণ করি তাহলে দেখব, ২০০৮ সালের পর থেকে খালেদা জিয়া যে অস্বাভাবিক রাজনীতির পথ অনুসরণ করেছেন, এখনও সে পথই অনুসরণ করে চলছেন। তিনি মোটেও বদলাননি, শোধরাননি। এতদিন যে ষড়যন্ত্র ও চক্রান্তের রাজনীতির পথে হেঁটেছেন, এখনও সে পথেই আছেন।’

শেখ হাসিনাকে মাফ করে দেয়ার ঘোষণাকে বছরের ‘সেরা রাজনৈতিক কৌতুক’ হিসেবে অবিহিত করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘মাফ তো চাইবেন বেগম জিয়া। মানুষ পোড়ানের জন্য, শেখ হাসিনাকে হত্যার চক্রান্তের জন্য। মাফ চাইবেন আহসানউল্লাহ মাস্টার ও শাহ এমএস কিবরিয়াকে হত্যার জন্য, জঙ্গিদের লালন ও রাজাকার পোষার জন্য’।

তিনি বলেন, ‘উনি (বেগম জিয়া) বলেছেন শেখ হাসিনার সরকার প্রতিহিংসার রাজনীতি করছে। আমি পরিষ্কার বলতে চাই শেখ হাসিনার সরকার প্রতিহিংসার রাজনীতি করছে না; বিচারহীনতার সংস্কৃতি থেকে বাংলাদেশকে উত্তরণের রাজনীতি করছেন।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: