সর্বশেষ আপডেট : ১৪ মিনিট ৪৪ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৬ জানুয়ারী, ২০১৮, খ্রীষ্টাব্দ | ৩ মাঘ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

মাকে দেখে কান্নায় ভেঙে পড়লেন হানিপ্রীত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: প্রতি বছরই ধুমধাম করে দীপাবলি পালন করতেন ডেরাতে। কিন্তু এ বছরটা কেটেছে একেবারেই অন্য রকম ভাবে। না আছে সেই জৌলুস, না আছে সেই উচ্ছ্বাস! দীপাবলিটা অম্বালার জেলের ১১ নম্বর সেলে বসেই কাটালেন গুরমিত রাম রহিমের ‘পালিত কন্যা’হানিপ্রীত। দিপাবলীর দিনে জেলে তার সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলেন তার বাবা-মা, ভাই, বোন এবং ভাইয়ের স্ত্রী।

জেল সূত্রে খবর, তাদের দেখেই কান্নায় ভেঙে পড়েন হানিপ্রীত। জেলের ইন্টারকমে হানির সঙ্গে প্রায় ৩৫ মিনিট ধরে কথোপকথন চলে তাদের। হানিপ্রীতের সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলেন তার আইনজীবীও। কিন্তু তাকে দেখা করার অনুমতি দেয়া হয়নি।

জেল সূত্রে আরো জানানো হয়েছে, পরিবারের লোকেরা হানিপ্রীতের জন্য উপহারও নিয়ে আসেন। তাকে এক বাক্স মোমবাতি ও মিষ্টি দেন তারা। প্রথম দিকে হানিপ্রীত তা নিতে অস্বীকার করলেও জোরাজুরি করায় পরে সেই উপহার নেন।

পুলিশ সূত্রে খবর, ধরা পড়ার পর থেকেই জেলে বিষণ্ণ রয়েছেন হানিপ্রীত। প্রথম রাতটা প্রায় না খেয়ে, না ঘুমিয়েই কাটিয়েছেন জেলে। ইতিমধ্যেই তার বিরুদ্ধে হিংসা ছড়ানো, গুরমিতকে নিয়ে পালানোর ছকের অভিযোগ ছাড়াও আরো অনেক চাঞ্চল্যকর তথ্য উঠে এসেছে। সম্প্রতি রাজস্থানের গুরুসার মোদিয়া থেকে কয়েক কোটি টাকা সম্পত্তির নথিপত্র বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিশ। তাদের দাবি, এগুলো সবই হানিপ্রীতের। মুম্বই, দিল্লি, হিমাচলপ্রদেশ, পাঞ্জাবসহ আরো বেশ কয়েকটি জায়গায় তার নামে বেনামী সম্পত্তি রয়েছে।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: