সর্বশেষ আপডেট : ৭ মিনিট ৩৯ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ২১ জানুয়ারী, ২০১৮, খ্রীষ্টাব্দ | ৮ মাঘ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সিলেটের অনেক গ্রামে প্রাথমিক বিদ্যালয় নেই

শিপন আহমদ ::
সিলেটের বালাগঞ্জ-ওসমানীনগর উপজেলার একাধিক গ্রামে প্রাথমিক বিদ্যালয় না থাকায় শিক্ষার আলো থেকে বঞ্চিত হচ্ছে কোমলমতি শিশুরা। উপজেলায় বিদ্যালয়বিহীন একাধিক গ্রামে কোনো প্রাথমিক বিদ্যালয় নেই। এতে দুই উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে ভেস্তে যাচ্ছে প্রাথমিক শিক্ষা ব্যবস্থা। বিদ্যালয়বিহীন এসব গ্রামের সহস্রাধিক শিশু শিক্ষার আলো থেকে বঞ্চিত হয়ে জাতির জন্য বোঝায় পরিণত হচ্ছে।

সরকারি নিয়মানুযায়ী দুই হাজার জনসংখ্যার বসবাসকারী প্রত্যেকটি গ্রামে এবং দুই কিলোমিটারের মধ্যে প্রাথমিক বিদ্যালয় নেই- এমন গ্রামগুলোতে একটি করে প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপনের কথা রয়েছে। এতে একটি বিদ্যালয় স্থাপনের জন্য প্রয়োজন ৩৩ শতাংশ ভূমি। এসব গ্রামের শিক্ষার্থীরা স্কুল দূরবর্তী হওয়ায় এবং গ্রামগুলোর যোগাযোগ ব্যবস্থা ভালো না থাকায় বিদ্যালয়েও নিয়মিত যেতে পারে না শিক্ষার্থীরা। এতে তাদের লেখাপড়ার ক্ষেত্রে ব্যাঘাত ঘটছে। এ অবস্থায় অনেক শিশুর স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। শিক্ষার আলো থেকে বঞ্চিত হওয়া এসব শিক্ষার্থী জড়িয়ে পড়ছে বিভিন্ন ঝুঁকিপূর্ণ কাজে। এর ফলে দুই উপজেলায় বাড়ছে শিশুশ্রম। উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের তথ্য মতে, দুই হাজার জনসংখ্যার বসবাসকারী প্রত্যেকটি গ্রামে এবং দুই কিলোমিটারের মধ্যে প্রাথমিক বিদ্যালয় নেই এমন গ্রামের সংখ্যা বালাগঞ্জ-ওসমানীনগর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে ৯টি। এই গ্রাম গুলো হচ্ছে বালাগঞ্জের দেওয়ান বাজার ইউনিয়নের খাঁপুর, আলাপুর, সিরাজপুর, ও সুলতানপুর, ওসমানীনগরের সাদিপুর ইউনিয়নের ভট চাতল, বেগমপুর, বেরারাই, লামা গাভুরটিকি, দয়ামীর ইউনিয়নের বড় দিরারাই। এর মধ্যে বড় দিরারাই গ্রামে একটি প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপন হলেও মামলা সংক্রান্ত জটিলতায় স্থাপনের পর থেকে কার্যক্রম স্থগিত রয়েছে। বিদ্যালয়বিহীন এসব গ্রামের একাধিক ব্যক্তির সাথে আলাপ কালে জানা যায়, বছরের অধিকাংশ সময় গ্রাম বন্যাক্রান্ত থাকে। বিদ্যালয় দূরবর্তী হওয়ায় শিশুরা প্রতিদিন স্কুলে যেতে আগ্রহী হয় না।

বালাগঞ্জ-ওসমানীনগর উপজেলার দায়িত্বে থাকা উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (চলতি দায়িত্ব) আব্দুর রকিব ভুইয়া বলেন, প্রাথমিক বিদ্যালয়বিহীন গ্রামে বিদ্যালয় স্থাপন প্রকল্পের আওতায় ক্রমান্বয়ে সবকটি গ্রামে বিদ্যালয় স্থাপন করার চলছে। এক্ষেত্রে বিদ্যালয়বিহীন গ্রামগুলোর বাসিন্দারে নিজ উদ্যোগে বিদ্যালয় স্থাপনের জন্য জমিদান করতে করতে হবে। এ বিষয়ে উপজেলা থেকে তালিকা তৈরি করে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ করা হয়েছে। এ সংক্রান্ত বিষয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা পেলে যথারীতি উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: