সর্বশেষ আপডেট : ২১ মিনিট ৪৬ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ২ কার্তিক ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

আজ শুরু টেস্ট সিরিজ : এবারই মোক্ষম সুযোগ

খেলাধুলা ডেস্ক ::

আগের দশবারের সাক্ষাতে ৮টিতেই হার। তন্মধ্যে ৭টি আবার ইনিংস ব্যবধানে। দুই বছর আগে বৃষ্টি আশীর্বাদ না হয়ে এলে হয়তো ওই সিরিজেও অসহায় আত্মসমর্পণ করতে হতো বাংলাদেশকে। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে টাইগারদের মুখোমুখি লড়াইয়ের অভিজ্ঞতা এমনই দুঃস্বপ্নের। দুঃস্মৃতির ক্ষতে প্রলেপ দেওয়ার মোক্ষম সুযোগটা এবারই পাচ্ছে বাংলাদেশ।

আজ পচেফস্ট্রুমে শুরু হচ্ছে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটি। এই ম্যাচ ঘিরে মুশফিকুর রহিমের দলের প্রস্তুতি চলছে অনেক দিনের। দক্ষিণ আফ্রিকায় কন্ডিশনিং ক্যাম্পে ধারাবাহিক অনুশীলন, প্রোটিয়াদের আমন্ত্রিত একাদশের বিপক্ষে তিন দিনের প্রদর্শনী ম্যাচ। প্রস্তুতির জন্য সময় এবং সুযোগ দুটোই পেয়েছে টাইগাররা। দক্ষিণ আফ্রিকার বাউন্সি উইকেটে অতিথিদের প্রস্তুতি কেমন হলো সেটা আজ থেকেই বোঝা যাবে।

প্রোটিয়াদের বিপক্ষে পাঁচ সিরিজের ৪টিতেই হেরেছে বাংলাদেশ। সবশেষ দুই ম্যাচের সিরিজটি অবশ্য ড্র হয়েছিল। কিন্তু অমীমাংসিত ওই সিরিজে টাইগারদের প্রাপ্তি বলতে প্রোটিয়াদের বিপক্ষে ঢাকা টেস্টে লিড নিতে পারাটা। দুই দলের শেষ টেস্টটা অবশ্য ভাসিয়ে নিয়ে গিয়েছিল অপয়া বৃষ্টি। অবশ্য বৃষ্টিটা একরকম সৌভাগ্য বয়ে এনেছিল বাংলাদেশের জন্য। প্রথমবারের মতো দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে ড্র করার গৌরব অর্জন হয়েছিল টাইগারদের।

এবার অবশ্য ড্রতে তৃপ্ত থাকতে রাজি নয় বাংলাদেশ। স্বপ্ন দেখছে সিরিজ জয়ের। মুশফিকদের এই জয়ের আশাটা যে একেবারেই অমূলক নয়। সাম্প্রতিককালে লাল বলের ইতিহাস অন্তত সেটাই বলছে। ক্রিকেটের বনেদী দুই দল ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়াকে বাংলাদেশ হারিয়েছে ঘরের মাঠে। এই দুই দলের মাঝের সময়টায় কলম্বোতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ঐতিহাসিক শততম টেস্টটা জিতে উপলক্ষটা রাঙিয়ে তুলেছিলেন মুশফিক-তামিমরা।

দারুণ জয়গুলো থেকে অনুপ্রেরণা খুঁজে নিচ্ছে বাংলাদেশ। দলও এই মুহূর্তে আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে আছে। সিরিজ জয়ের তাড়না আছে দলের প্রত্যেক সদস্যের মধ্যে। টাইগারদের সিরিজ জয়ের আত্মবিশ্বাস কয়েকগুণ বেড়ে গেছে আরো একটি কারণে। প্রতিপক্ষ চোটাক্রান্ত দক্ষিণ আফ্রিকা বলেই আশায় বুঁদ হয়ে আছে মুশফিকের দল। ইনজুরি সিরিজ থেকে ছিটকে দিয়েছে ডেল স্টেইন, ক্রিস মরিস ও ভারনন ফিল্যান্ডারকে। এই পেসারত্রয়ীর অনুপস্থিতি বড়সড় ধাক্কা হয়েই এসেছে প্রোটিয়া শিবিরে। লাল বলের ম্যাচে খেলা হচ্ছে না এবি ডি ভিলিয়ার্সেরও। তার জায়গায় দক্ষিণ আফ্রিকাকে নেতৃত্ব দেবেন ফাফ ডু প্লেসি। এবং পচেফস্ট্রুম টেস্ট দিয়েই শুরু হচ্ছে প্রোটিয়াদের ডু প্লেসি যুগ। ‘চোকার্স’ খ্যাত দলটার তিন সংস্করণের দলপতিই যে এই ব্যাটসম্যান। শুধু অধিনায়কই নয়, দক্ষিণ আফ্রিকা এই সিরিজটা শুরু করতে যাচ্ছে নতুন কোচ ওটিস গিবসনের অধীনে। চ্যালেঞ্জটা তাই এই ক্যারিবিয়ানের জন্যও।

অবশ্য পূর্ণ শক্তির দল নিয়ে মাঠে নামতে না পারার কারণে নয়, বাংলাদেশকে দক্ষিণ আফ্রিকা সমীহ করছে প্রতিপক্ষ হিসেবেই। প্রোটিয়াদের হয়ে প্রথম সংবাদ সম্মেলনেই ভাবি কোচ জানিয়ে দিয়েছিলেন- টাইগারদের বিপক্ষে সিরিজ চ্যালেঞ্জিং হবে। এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় কিছুটা হলেও স্বস্তি পাচ্ছে স্বাগতিক শিবির। প্রতিপক্ষের কান্ডারি সাকিব আল হাসান যে ম্যাচে দর্শক সারিতে থাকছেন।

সাকিব না থাকার পরও সিরিজটা কেন চ্যালেঞ্জিং সেটার ব্যাখ্যাটা কাল ম্যাচপূর্ব সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন প্রোটিয়া দলপতি ডু প্লেসি, ‘গত দুই বছরে ওদের (বাংলাদেশ) অনেক উন্নতি হয়েছে। ওদের মাঠে খেলাটা যেকোনো দলের জন্য কঠিন। এটা ওদের জন্য দেশের বাইরে ভালো কিছু করে দেখানোর সুযোগ।’ সুযোগটা কাজে লাগাতে তিন পেসার নিয়ে একাদশ সাজানোর ঘোষণা দিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মুশফিক। বলেছেন, আমাদের দলে পাঁচজন পেসার আছেন। প্রথম ম্যাচে আমরা তিন পেসার নিয়ে মাঠে নামব।

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের অনুপস্থিতি বাংলাদেশের জন্য দুঃসংবাদ। শঙ্কা জেগেছিল দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকারকে নিয়েও। কিন্তু আশার খবর হচ্ছে চোট কাটিয়ে ফিট হয়ে উঠেছেন দুজনই। টাইগারদের ইনিংসের শুরুতেই ব্যাট হাতে দেখা যাবে বাঁ-হাতিদ্বয়কে। ব্যাট হাতে দেখা যেতে পারে ইমরুল কায়েসকেও। ২০০৮ সালে শেষবার বাংলাদেশ যখন দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করেছিল সেই দলের যে তিনজন বর্তমান দলে আছেন তাদের একজন। অন্য দুজন তামিম ও মুশফিকুর রহিম।

সম্ভাব্য একাদশ : বাংলাদেশ : তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, ইমরুল কায়েস, মুমিনুল হক, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মুশফিকুর রহিম (অধিনায়ক ও উইকেটরক্ষক), সাব্বির রহমান, মেহেদি হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ, শুভাশীষ রায় ও মুস্তাফিজুর রহমান।

দক্ষিণ আফ্রিকা : ডেন এলগার, এইডেন মার্করাম, হাশিম আমলা, টেম্বা বাভুমা, ফাফ ডু প্লেসি (অধিনায়ক), কুইন্টন ডি কক (উইকেটরক্ষক), থেউনিস ডি ব্রুইন, কেশব মহারাজ, কাগিসো রাবাদা, মরনে মরকেল ও ডুয়ান অলিভার।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: