সর্বশেষ আপডেট : ৭ মিনিট ২০ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৭ কার্তিক ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

চুনারুঘাটে নিহত শিশু রবিউল ইসলামের নামে কাঠের সেতু

pic_8162017153743চুনারুঘাট প্রতিনিধি:: চুনারুঘাটের কৃতি সন্তান ও আর্ন্তজাতিক অপরাধ ট্রাইবুনালের পাবলিক প্রসকিউটর ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন নিজস্ব অর্থায়নে গতকাল দুপুরে ১ নং গাজীপুর ইউপির পশ্চিম ডুলনায় ভাঙ্গারপুল ছড়ার উপর রবিউল ইসলামের নামে একটি কাঠের সেতু তৈরি করে দিয়েছেন । ফলে স্থানীয় জনসাধারণসহ স্কুল শিক্ষার্থীদের চলাচলের পথ সহজ হয়েছে।

শুক্রবার সকাল ৯ ঘটিকায় ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমনের উপস্থিতিতে কাজ শুরু হয়। সেতুর দৈর্ঘ্য ৬০ ফুট। সারাদিনব্যাপী সার্বীক দিক-নির্দেশনায় কাঠের সেতটিু তৈরি হয় এবং ‘বিউল সেতু’ নামে সেতুটি নামকরণ করেন স্থানীয় জনসাধারণ ও মেধাবী ছাত্র রবিউল এর পরিবার এর সবাই কে নিয়ে। শেষ বিকেলে সেতুটির কাজ সম্পন্ন হয়।

এর আগে ব্যারিস্টার সুমন মেধাবী ছাত্র রবিউলের বাড়িতে গিয়ে পরিবারের লোকজনকে শান্তনা দেন। দোয়া মাহফিলে শামিল হন এবং নিহত রবিউল এর আত্নার শান্তি কামনা করেন। পরে সকলকে নিয়ে সিন্নি খান।

সেতুটি নির্মাণের সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক কে এম আনোয়ার, ৫ নং শানখলা ইউপির স্থানীয় আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম চৌধরী এখলাছ, বিশিষ্ট সমাজসেবক সাইফুল ইসলাম চৌধুরী লিটন, চুনারুঘাট সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি আব্দুর রাজ্জাক রাজু, স্থানীয় মেম্বার মালেক মিয়া, যুবলীগ নেতা রফিক মিয়া, দুলাল মিয়া প্রমুখ।

এলাকাবাসি ও স্থানীয় কয়েকজন বাসিন্দা জানান,অনেক দিন আগে স্থানীয়দের সহায়তায় সুতাং ছড়ায় বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করলে সাম্প্রতিক সময়ে বন্যায় বাঁশের সাঁকোটি জরাজীর্ণ ছিলো। জনসাধারণরা ঝুঁকি নিয়ে পারাপার করতো। এবার দুর্ভোগ রহিত হয়েছে।

তারা বলেন, এই রাস্তায় প্রতিদিন শত শত ছাত্র- ছাত্রীসহ পথচারিরা পারাপার করতো। ব্যক্তিগত উদ্যোগে সেতুটি তৈরি হওয়ায় পারাপার সহজ হয়েছে। পানি বেয়ে আর যেতে হবে না। আমাদের দীর্ঘদিনের যাত্রা বিড়ম্বনা দুর হলো।

তারা আরো বলেন,ব্যারিস্টার সুমন সাহেবের উদারতায় কাজটি সহজে হয়েছে। জনসাধারণের দুর্ভোগ রহিত করারও নেতৃত্বে অন্যতম মাধ্যম ।
এটি দীর্ঘদিনের সমস্যা ছিলো। বর্ষায় চলাচল করা খুবই কষ্টকর ছিলো। শুকনো সময়ে ততটা বিড়ম্বনা হতো না ।”

আর্ন্তজাতিক অপরাধ ট্রাইবুনালের প্রসকিউটর সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন বলেন,’জনসাধারণের সেবায় কাজ করতে চাই। স্থানীয় জনসাধারণের পারাপারের কিছুটা হলোও স্বস্তিবোধ হবে । এই সেতুর মাধ্যমে গাড়ি না চললেও যাতায়াত করা সম্ভব হবে। নিরাপদ হাঁটাযাত্রার নতুন ক্ষেত্র হয়েছে ।’

ছাত্র-ছাত্রীসহ স্থানীয় পথচারিরা সবচেয়ে বেশি উপকৃত হচ্ছে জানিয়ে ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমন আরো বলেন, ‘এর ফলে তারা নিরাপদে যাতায়াতের প্রক্রিয়া সহজ হয়েছে।’

কথোপকথনে তিনি আরো বলেন, চুনারুঘাট-মাধবপুর বাসীর জন্য কাজ করতে চাই। জনসাধারণের দুর্ভোগ প্রতিহত করতে চেষ্টা করছি। আগামী প্রজন্ম কে শিক্ষা দিতে হবে। ইচ্ছা করলেই স্বাধ্যের মধ্যেও স্বপ্ন পূরণ সম্ভব।

উল্লেখ্য, গত ১৩ সেপ্টেম্বর বুধবার দুপুর ২ ঘটিকায় উপজেলার ১নং গাজীপুর ইউনিয়নের পশ্চিম ডুলনা গ্রামের ভাঙ্গারপুল ছড়ার উপর সাঁকো থেকে পা পিছলে পানিতে পড়ে রবিউল নামে এক স্কুল ছাত্রের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে শায়েস্তাগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে আসেন। প্রায় এক ঘন্টা চেষ্টার পর স্থানীয় লোকজন ছড়ার পানি থেকে তার লাশ উদ্ধার করেন।

এ খবর স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকাসহ ইলেকট্রিক মিডিয়ায় প্রকাশ হয়। এ মর্মান্তিক খবরটি আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন এর নজরে পড়লে তিনি ঢাকা থেকে চুনারুঘাটে ছুঁটে আসেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: