সর্বশেষ আপডেট : ১৪ মিনিট ৫ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ২৮ মে, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

তাহিরপুরে ভাঙ্গারখাল নদীতে ব্রীজ না থাকায় দূর্ভোগ

unnamed (3)তাহিরপুর সংবাদদাতা:: সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার ভাঙ্গারখাল নদীর উপর একটি ব্রীজ না থাকায় দুটি ইউনিয়নের সংযোগ স্থাপন করতে পারছে না। কিন্তু স্বাধীনতার ৪৪বছর পার হলেও এ নদীতে ব্রীজ তৈরি না হওয়ায় বাদাঘাট ও উত্তর বড়দল ইউনিয়নের স্কুল,কলেজ ও মাদ্রসার ছাত্র-ছাত্রী সহ ১০টি গ্রামের লক্ষাধিক জনসাধারন প্রতিদিন দূর্ভোগের শিকার হচ্ছে। বাদাঘাট ইউনিয়ন ও উত্তর বড়দল ইউনিয়নের পৈইলানপুর,লাকারখিত্তা,আম বাড়ি,কাশতাল,চরগাঁও সহ ১০টি গ্রামের লক্ষাধিক মানুষের চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে ৪৪বছর ধরে। ফলে এলাকাবাসীর মাঝে র্দীঘ দিনের ক্ষুব বিরাজ করছে। যেন দেখার কেউ নেই।

জানাযায়,উপজেলার ব্যবসা বানিজ্যের প্রান কেন্দ্র বাদাঘাট বাজারের মাছ বাজার সংলগ্ন ভাঙ্গারখাল নদীর উপর ব্রীজ না থাকায় প্রতি বছর বর্ষার সময় ছোট নৌকা দিয়ে এ নদী পাড় হতে গিয়ে দূর্ঘটনার শিকার হয়। শুষ্ক মৌসুমে হাটু উপরে পানি পাড়ি দিয়ে না বাঁশের সাকোঁ পাড়ি দিয়ে বাদাঘাট বাজারে আসতে হয় নানান বয়সের মানুষ কে। না হয় প্রায় ২কিলোমিটার এলাকা ঘুরে আসতে হয় বাদাঘাট ইউনিয়নের বাজারে। এ নদীতে ব্রীজ না থাকায় উত্তর বড়দল ইউনিয়নের ঐ সব গ্রাম গুলোর উৎপাদিত কৃষি জাত পন্য উপজেলার ব্যবসা-বানিজ্যের প্রান কেন্দ্র বাদাঘাট বাজার আনতে গিয়ে ও উপজেলা সদরের নিতে খরছের পরিমান বেড়ে যাওয়ায় কৃষকরা লাভবান হতে পারছে না। উত্তর বড়দল ইউনিয়নের রয়েছে একটি মাদ্রাসা ও কয়েকটি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এছাড়াও এই ইউনিয়নের লোকজন চিকিৎসা নিতে উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে ও বাদাঘাট ইউনিয়নে কিন্টার গার্ডেন স্কুল,প্রাইমারী স্কুল,উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল,মাদ্রাসা,কলেজে পড়াশুনা করার জন্য আসা যাওয়া করছে প্রতিদিন। আর আসা যাওয়া করতে গিয়ে প্রতিদিন এ নদীই পাড়ি দেয় হাজার হাজার ছাত্র-ছাত্রী,বিভিন্ন শ্রেনী পেশার নারী-পুরুষ দূঘটনার শিকার হচ্ছে। এছাড়াও প্রতিদিন এ নদী পাড়ি দিয়ে বাদাঘাট বাজার থেকে দৈনিক পরিবারের চাহিদা অনুযায়ী প্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব ও কাচাঁ বাজার কেনার জন্য আসা-যাওয়া করেন স্থানীয় জনসাধরন। এই নদীর উপর একটি ব্রীজ নির্মানের দাবী জানিয়ে আসলেও কোন কর্নপাত করছেন না সংশ্লিষ্ট কর্তপক্ষ। স্থানীয় বর্তমান মেম্ভার শফিকুল ইসলাম জানান,এই নদীতে একটি ব্রীজ না থাকায় আমরা এলাকাবাসী খুব কষ্টের মাঝে আছি।

অথচ কেউই এই নদীর উপর ব্রীজ নির্মানের কথা বলে না। ব্যবসায়ী আবুল কালাম,ইউসুফ আল মামুন,জয়নাল সহ স্থানীয় এলাকাবাসী জানান,সরকারী দল না বিরোধী দল আমাদের কথা কেই শুনে না। সবাই সবার আখের গোছানো নিয়ে ব্যাস্থ রয়েছে। নির্বাচন এলে চেয়ারম্যানদের মুখে মিষ্টির কথা শুনা যায় কিন্তু এ নদীতে ব্রীজ নির্মানে কথা শুনা যায় না। ব্রীজ নির্মানের দাবী জানাই সরকারের কাছে। উত্তর বড়দল ইউনিয়নের আ,লীগ নেতা ও বাদাঘাট বাজার বনিক সমিতির সাধারন সম্পাদক মাসুক মিয়া বলেন,সারা বছর এ নদী দিয়ে উত্তর বড়দল ইউনিয়নের লক্ষাধিক মানুষ,ব্যবসায়ীরা বাদাঘাট বাজারে এবং তাহিরপুর উপজেলা সদরে যাতায়াত করে। এ ইউনিয়নে স্কুল,মাদ্রাসা ও বাদাঘাট ইউনিয়নের কিন্টার গার্ডেন স্কুল,প্রাইমারী স্কুল,উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল,মাদ্রাসা,কলেজ,উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র থাকায় এবং এ ইউনিয়নের লোকজনের সাথে বাদাঘাট ইউনিয়নের লোকজনের সাথে আতœীয়তার সম্পর্ক থাকায় নদী পার হয়ে আসা যাওয়া করে প্রতিদিন। এ নদীটিতে একটি ব্রীজ তৈরি করা খুবেই জরুরী তা না হলে জনগনের দূর্ভোগের শেষ থাকবে না। তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কামরুল জানান,জনগনের সুবিধা ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নের স্বার্থে উপজেলার ব্যবসা বানিজ্যের প্রান কেন্দ্র বাদাঘাট বাজারের মাছ বাজার সংলগ্ন স্থানে ভাঙ্গারখাল নদীর উপর ব্রীজ তৈরির জন্য আমার পক্ষ থেকে সর্বাতœক চেষ্টা করব।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: