সর্বশেষ আপডেট : ৫ মিনিট ৫৭ সেকেন্ড আগে
সোমবার, ২৯ মে, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

শ্রীমঙ্গলের ফুল বাগানে ফুটেছে ‘মে ফুল’

dsltতোফায়েল আহমেদ পাপ্পু, শ্রীমঙ্গল:: শ্রীমঙ্গলে ফুটেছে ‘‘মে ফুল’’। এই মে মাসের গরমে কৃষ্ণচূড়ার পাশাপাশি যেই আরেকটি ফুল চোখে স্বস্তি এনে দেয়। সারা বছর অপেক্ষার পরে এই মে মাসে একবারই ফোটে এই ফুল। দৃষ্টিনন্দিত এই মে ফুল ফুটেছে শ্রীমঙ্গলের ডাক বাংলা রোড নিবাসী স্বর্গীয় সন্তোষ চন্দ্র পাল এর বাড়ীর আঙ্গীনায়।

সোমবার(১লা মে) তার বাড়ীর ফুলবাগানে এ ফুল ফুটন্ত অবস্থায় দেখা গেছে। এপ্রিল মাসের শেষে গাছে কলিসহ ডাঁটা বের হয়ে এই ফুল ফোটা শুরু করে, তারপর পহেলা মে ফুল পূর্ণাঙ্গ আকার ধারণ করে এবং মে মাসের শেষ সপ্তাহে আবার এই ফুল ঝরে পরে। ১১ মাস গাছটি জীবিত থাকলেও ফুল একবারই ফোঁটে বলে জানান, স্বর্গীয় সন্তোষ চন্দ্র পাল এর জেষ্ঠো পুত্র ও লেখক সুমন পাল এর পিতা সুভাষ চন্দ্র পাল। প্রতিদিন ভোরে ঘুম থেকে উঠে ফুল বাগানের পরিচর্যা করে থাকেন তিনি। এই ফুলটির আদি নিবাস আফ্রিকা মহাদেশে যা “বল লিলি” বা “ব্লাড লিলি” নামে পরিচিত। জাভা দ্বীপপুঞ্জের এই উদ্ভিদের এত দিন কোনো বাংলা নাম ছিল না। পরে এর বাংলা নাম রাখেন অধ্যাপক দ্বিজেন শর্মা। আকৃতির দিক থেকে এরা সোনাইলের মতো, তবে রঙ গোলাপি বা কোমল লাল। যদিও এই নামে খুব একটা পরিচিত নয় এই ফুলটি। বেশি প্রচলিত হলো মে ফুল নামে। মে ফ্লাওয়ারের ফুল, পাতা ও গাছের গড়ন সব মিলিয়ে বেশ নান্দনিক ও চোখে পড়ার মতো। মনমাতানো কোনো গন্ধ না থাকলেও দূর থেকে দেখলেই এই বিদেশি ফুলটিকে দেখে চোখ জুড়িয়ে যাবে যে কারো।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: