সর্বশেষ আপডেট : ১০ মিনিট ৬ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১৪ ফাল্গুন ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ওবামার পেনশন কত জানেন?

full_387769457_1485090177আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: কতো টাকা পেনশন পাবেন বারাক ওবামা? শুক্রবার দুপুর থেকেই স্থায়ীভাবে বেকার হয়ে গেলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ওবামা। যুক্তরাষ্ট্রের সংবিধান অনুযায়ী তিনি আর কোনো চাকরি বা ব্যবসাও করতে পারবেন না। তবে কেন্দ্রীয় সরকারের অবসরপ্রাপ্ত একজন কর্মকর্তা হিসেবে পেনশন পাবেন তিনি। কিন্তু বিশ্বের সবচে ক্ষমতাধর রাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হোয়াইট হাউস ছেড়ে কি নিয়ে বাড়ি ফিরছেন তা জানতে সবারই আগ্রহ রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের নিয়ম অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট পরবর্তী জীবনের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নিতে সাত মাস পর্যন্ত একটা অন্তর্বর্তীকালীন সেবা দেয়া হয়। ওবামাও সেই সুবিধা পাবেন। সাবেক কমান্ডার ইন চিফ হিসেবে তিনি সারা জীবন সিক্রেট সার্ভিসের নিরাপত্তা এবং ভ্রমণ, অফিস খরচ, যোগাযোগ খরচ ও স্বাস্থ্যসেবাসহ বেশ কিছু সুবিধা পাবেন।

সামনের বছরগুলোতে বারাক ওবামা (৫৫) পেনশন হিসেবে পাবেন বাৎসরিক ২ লাখ ৭ হাজার ৮০০ ডলার। যা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ১ কোটি ৬৪ লাখ ৪৭ হাজার টাকা। প্রেসিডেন্ট হিসেবে তিনি যে বেতন-ভাতা পেতেন এটা তার অর্ধেক।

এর সঙ্গে যুক্ত হবে অতিরিক্ত কিছু খরচ। ২০১৫ সালে এই খরচ কিছুটা কমবেশি হয়েছে। জিমি কার্টার পেয়েছেন দুই লাখ ডলার এবং জর্জ ডব্লিউ বুশ পেয়েছেন ৮ লাখ। অবশ্য কার্টার হেলথ ইনসুরেন্স পাননি কারণ পাওয়ার যোগ্যতা অর্জনের জন্য কেন্দ্র সরকারের হয়ে পাঁচ বছর কাজ করতে হয়।

সাবেক প্রেসিডেন্টদের জন্য পেনশনের রীতি চালু হয় ১৯৫৮ সালে। প্রেসিডেন্ট হ্যারি ট্রুম্যান দায়িত্ব ছাড়ার পর আর্থিক সঙ্কটে পড়েছিলেন। তখন থেকেই এই রীতি চালু হয়। এখন প্রেসিডেন্ট যে পেনশন পান তা মন্ত্রিপরিষদ সচিবের বেতনের সমান। আর এই বেতন নির্ধারণ করে কংগ্রেস।

গত বছর বিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত কংগ্রেস একটি বিল পাস করে যেখানে পেনশন বাবদ দুই লাখ ডলার এবং অন্যান্য খরচ বাবদ দুই লাখ ডলার দেয়ার সীমা নির্ধারণ করা হয়। সামাজিক নিরাপত্তা সুবিধার নিয়ম অনুযায়ী জীবনযাত্রা ব্যয়ের সাথে পেনশনের ভারসাম্য করার কথাও বলা হয়।

উল্লেখ করা হয়, বেশিরভাগ সাবেক প্রেসিডেন্ট সাধারণত বক্তৃতা দিয়ে ও বই লিখে আয় করতে পারছেন। সেক্ষেত্রে দায়িত্ব ছাড়ার পর আলাদা করে খরচ দেয়ার ব্যাপারে নাগরিকদের সমর্থন প্রয়োজন হতে পারে।

তবে ওবামা কংগ্রেস প্রস্তাবিত বিলে ভেটো দিয়েছিলেন, কারণ তার মতে এই বিল সাবেক প্রেসিডেন্টের কর্মকর্তা কর্মচারীদের বেতন-ভাতা ও অন্যান্য সুবিধাদি বাতিল করে দেয় এবং সাবেক প্রেসিডেন্টদের সিক্রেট সার্ভিসের নিরাপত্তা পাওয়ার বিষয়টি কঠিন করে তোলে।

তিনি বলেন, কংগ্রেস যদি এই আশঙ্কার বিষয়গুলো পরিষ্কার করে উল্লেখ করে এবং স্পষ্ট নির্দেশনা সহকারে আনতে পারে তাহলে তিনি স্বাক্ষর করবেন। কিন্তু পরে বিলটি আর টেবিলে উত্থাপনই করা হয়নি। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের বর্তমান বেতন-ভাতা ৪ লাখ ডলার। যদিও নির্বাচনী প্রচারণার সময় ট্রাম্প বলেছিলেন তিনি কোনো বেতন-ভাতা নেবেন না। সূত্র: সিএনএন

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: