সর্বশেষ আপডেট : ৪ ঘন্টা আগে
মঙ্গলবার, ২১ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৯ ফাল্গুন ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ধর্মের নামে ভোট চাওয়া যাবে না ভারতে

image-14617আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: জাতি, ধর্ম, বর্ণ, সম্প্রদায় বা ভাষার ভিত্তিতে আর ভোট চাইতে পারবে না ভারতের রাজনৈতিক দলগুলি। সোমবার দেশটির সুপ্রিম কোর্ট এই বিষয়ে ঐতিহাসিক এক রায় ঘোষণা করে। সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি টিএস ঠাকুরের নেতৃত্বে সাত বিচারপতির এক ডিভিশন বেঞ্চ এ দিন এই রায় দেন।

সুপ্রিম কোর্ট জানায়, সংবিধানের ধর্মনিরপেক্ষতার আদর্শ বজায় রেখেই নির্বাচনে লড়াই করতে হবে। নির্বাচন একটি ধর্মনিরপেক্ষ প্রক্রিয়া। পাশাপাশি, জনপ্রতিনিধিকেও ধর্মনিরপেক্ষ হতে হবে।

ডিভিশন বেঞ্চের মতে, ধর্মীয় বিশ্বাসের মতো ব্যক্তিগত বিষয় প্রতিটি মানুষের ইচ্ছা-অনিচ্ছার ওপর নির্ভরশীল। আর তাতে হস্তক্ষেপ চলতে পারে না। যদিও এ দিনের রায়ে ভিন্ন মত পোষণ করেছেন ডিভিশন বেঞ্চের সাত সদস্যের মধ্যে তিন বিচারপতি। তারা মনে করেন, এতে গণতন্ত্রে বাধার সৃষ্টি হবে।

সাংবিধানিক বেঞ্চের সাত বিচারপতির মধ্যে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি টি এস ঠাকুর, বিচারপতি এম বি লোকুর, এস এ বোড়ে এবং এল এন রাও নির্বাচন থেকে ধর্মকে দূরে সরিয়ে রাখার পক্ষে মত দেন। অন্যদিকে বিচারপতি এ কে গোয়েল, ইউ ইউ ললিত এবং ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় এই তিন বিচারপতি এই মতের বিপক্ষে মত দেন।

আগামী কয়েক মাসের মধ্যে উত্তরপ্রদেশ, পাঞ্জাবসহ ভারতের পাঁচটি রাজ্যে বিধানসভার নির্বাচন। তার আগে শীর্ষ আদালতের এই রায় যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়াল। কারণ উত্তরপ্রদেশে বরাবরই জাতপাতের ভিত্তিতে ভোট হয়ে থাকে। রাম মন্দির এবং বাবড়ি মসজিদকে সামনে রেখে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলগুলি তাদের দিকে ভোট টানার চেষ্টা করে থাকে বলে শোনা যায়।

এ রায়ের কারণে ঝামেলায় পড়বে ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টি(বিজেপি), অখিল ভারতীয় হিন্দু মহাসভা, অখিল ভারতীয় জনসংঘ, ভারতীয় ধর্ম জনসেনা, ভারতীয় জনসংঘ, ভারতীয় জনশক্তি পার্টি, হিন্দু সেনা, রাষ্ট্রীয় হিন্দু সেনা, রাষ্ট্রীয় জাগরণ মঞ্চ, সনাতন সংস্থা, হিন্দু মহাসভা, বিশ্ব হিন্দু পরিষদ, শিবসেনা, রামসেনা এবং বজরঙ্গ দলসহ উগ্র হিন্দুত্ববাদী রাজনৈতিক দলগুলো।

সোমবার সুপ্রিম কোর্টের রায়ের পর বিজেপিকে কটাক্ষ করতে ছাড়েনি ন্যাশনালিস্ট কংগ্রেস পার্টি (এনসিপি)। এনসিপি নেতা মজিদ মেমন বলেন, এই রায়ের পর সবচেয়ে বেকায়দায় পড়তে পারে বিজেপি। কারণ, রাম মন্দির ইস্যুকে ফের চাঙ্গা করার চেষ্টা করছে তারা। বিজেপি নেতা সুব্রামানিয়ান স্বামীর দাবি, বিজেপি কখনই ধর্মের ভিত্তিতে ভোট চায়নি।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: