সর্বশেষ আপডেট : ৩ ঘন্টা আগে
শনিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৬ কার্তিক ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

যে কারণে খুন হলেন চীনা নাগরিক চেং হেসং

164129_1নিউজ ডেস্ক: অটোরিকশার ভাড়া দরদামকে কেন্দ্র করে অসন্তোষের জেরে মাত্র পাঁচশত টাকার জন্য চীনা নাগরিক চেং হেসং (৪৫) খুন হয়েছেন বলে ধারণা করছে পুলিশ।

যশোরের পুলিশ জানিয়েছে, চেং হেচংকে প্রথমে রড দিয়ে পিটিয়ে ও পরে ব্লেড দিয়ে শরীর চিরে হত্যা করে লাশ বস্তায় ভরে রেখে দেয় খুনিরা।

তবে নিহত চীনা নাগরিকের গাড়ি চালক মামুন অভিযোগ করেন, গাড়ির বিল হিসেবে অতিরিক্ত ৫০০ টাকা দিতে রাজি না হওয়ায় চেং হেসংকে হত্যা করেছে আটক হওয়া ওই দুই ব্যক্তি।

তিনি জানান, ‘তারা ব্যাটারিচালিত ইজিবাইকের ভাড়া বাবদ ৮০০ টাকা চেয়েছিল চীনা নাগরিকের কাছে। কিন্তু তিনি ৩০০ টাকা দিতে চেয়েছিলেন।’

যশোরের পুলিশ সুপার (এসপি) আনিসুর রহমান জানান, বুধবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে ফরিদা ভিলা নামের তিনতলা বাড়িটির নিচতলায় চীনা নাগরিক চেং হেসংকে টাকার জন্যে তার সহকারি নাজমুল ও নাজমুলের ভাইপো মুক্তাদির রড বা লোহার পাইপ জাতীয় কোনো বস্তু দিয়ে মাথায় আঘাত ও পিটিয়ে হত্যা করে। ব্লেড দিয়ে দেহ কাটে। বস্তায় ভরে লাশ টয়লেটে রেখে দেয়। এরপর তার মোবাইলফোন সেট নিজেদের কাছে বন্ধ করে রেখে দেয়।

খুন করার পর লাশ এখানেই রেখে দেয় 

পুলিশ সুপার জানান, নিহতের স্ত্রী ঢাকায় থাকেন। তিনি রাতে কয়েকদফা ফোন করেও চেং হেসংকে না পেয়ে নাজমুলকে ফোন দেন। তখন নাজমুল জানায়, ‘স্যারকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না’। সেইসময় তার স্ত্রী বিষয়টি থানায় অবহিত করতে বলেন।

পুলিশ জানায়, গভীর রাতে নাজমুল কোতোয়ালি থানায় এ বিষয়ে জানাতে গেলে পুলিশ তাকেই সন্দেহ করে আটক করে। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী মুক্তাদিরকে আটক করা হয়। তারাই পুলিশকে খুনের বিষয়টি জানায়।

তারা জানায়, রাত থেকেই ওই বাড়িটি পুলিশের নজরদারিতে ছিল। আটক দুজনের বাড়ি নেত্রকোণা সদরের চকপাড়া এলাকায়।

এদিকে, সকালে যশোরের পুলিশ সুপার, কোতোয়ালি থানার ওসি, পিবিআই এবং সিআইডি কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) এডিশনাল এসপি আব্দুল মতিন জানান, স্বামীর কোনো খোঁজ না পেয়ে সকালের ফ্লাইটে তার স্ত্রী টেমু লাই এন যশোরে চলে আসেন। তিনি পুলিশের সহায়তায় ঘটনাস্থলে পৌঁছান।

আটককৃত দুই জনের উপর এভাবেই তেড়ে আসেন নিহতের শোকার্ত স্ত্রী

এদিকে, সাংবাদিকদের সামনে ব্রিফিংকালে আটক নাজমুল ও তার ভাইপো মুক্তাদিরকে সামনে আনা হলে নিহতের স্ত্রী উত্তেজিত হয়ে পড়েন। তিনি ওইসময় সবার সামনেই নাজমুলকে কিল ঘুসি ও লাথি মারতে থাকেন। চীনা ভাষায় কান্নাজড়িত কণ্ঠে চিৎকার করতে থাকেন।

বৃহস্পতিবার সকালে যশোর উপশহরের মহিলা কলেজের পাশে সেক্টর নম্বর ২, বাড়ি নম্বর ৩৪ থেকে চীনা নাগরিকের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত চেং হেসং মূলত চীন থেকে ইজিবাইকের ব্যাটারি আমদানি করে এ অঞ্চলে ব্যবসা করতেন।

পুলিশ জানায়, নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্যে যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হবে।

বাড়ির মালিক মাসুদুর রহমান জানান, চেং হেসং প্রায় সাত মাস তার বাড়িটি ভাড়া নেন। এখানে তার গোডাউন রয়েছে।

কোতোয়ালি থানার ওসি ইলিয়াস হোসেন জানান, তিনি ২০১৪ সাল থেকে বাংলাদেশে ব্যবসা করছেন। সর্বশেষ ২০১৬ সালের ২৭ নভেম্বর নিহত ওই চীনা নাগরিক বাংলাদেশে আসেন বলেও জানান ওসি।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: