সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
রবিবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

হেমন্তের হিমেল হাওয়া জানান দিচ্ছে শীত আসছে

1445363964নিজস্ব প্রতিবেদক:: শীত আসছে আসছে করে এসেই গেলো। শীতের বুড়িটা কোনো কোনো এলাকায় জেঁকে বসার প্রস্তুতিও নিচ্ছে জোরেশোরে। শীতের আগমনের পদধ্বনিতে প্রকৃতি সেজে উঠেছে নতুন আমেজে। মৌসুমি বায়ু বিদায় নিয়েছে। বাতাসে শুষ্কতার ছোয়া। দুয়ারে কড়া নাড়ছে শীত। কাক ডাকা ভোরে গাছপালা ও ঘাসের সবুজ গালিচায় মুক্তাবিন্দুর মতো শিশির পড়তে শুরু করেছে। হেমন্তের হিমেল হাওয়ায় জানান দিচ্ছে শীত আসছে।

শীতের আগমনে সিলেটে গত কয়েক দিনে লক্ষ করা যায় ব্যবসায়ীরা ফুটপাতে বসেছে শীতর গরম কাপড় নিয়ে। নগরীর মার্কেটে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় প্রায় সব কাপড়ের দোকানেই শীতের কাপড় উঠেছে। উচ্চ থেকে মধ্য ও নিম্নবিত্ত পর্যায়ের মানুষ এখন শীতের গরম কাপড় ক্রয় করতে ভীড় করছেন বিভিন্ন দোকানগুলোতে। নগর ঘুড়ে দেখা যায় সব প্রায় সব দোকানগুলোই সন্ধ্যার পর ভীড় জমে।

অন্যদিকে লক্ষ করা যায় শীতের প্রসাধনী সামগ্রী কিনতে কসমেটিক দোকানগুলোতে ভীড় করছেন বিভিন্ন বয়সী মহিলারা।

কসমেটিক ব্যবসায়ী আলী হেসেন জানান, শীতের আগমনে মেরিল, লিপজেল, লোশন, অয়েল, ক্রীম, পমেট, চেপষ্টিক সহ আরও বিভিন্নকসমেটিক সামগ্রী গত ২ সপ্তাহ ধরে ক্রেতাদের চাহিদা বেড়েছে।

শীতের কাপড় কিনতে আসা সাখাওয়াত লিমন জানান, আর কিছুদিন পরেই পুরোপুরি শীত শুরু হবে তাই আগে ভাগেই শীতের গরম কাপড় কিনতে এসেছি।

ছয় ঋতুর দেশে শীত আসে উৎসবের আমেজ নিয়ে। শীত প্রকৃতি থেকে অনেক সুবিধা নেয় মানুষ। ঘাঁস ও গাছের পাতায় টলমলে শিশির দেখা যায়। ফুলের মৌ মৌ গন্ধেও মিশে আছে শীতের আমেজ। ফুলের মোহনীয় রূপ পাওয়া যায় শীতে। প্রকৃতির এ রূপটাকে বাড়িয়ে দিতে প্রতি বছর এই শীতে আসে অতিথিরা। এসে আমাদের মনকে আরো রাঙিয়ে তোলে নতুন ছন্দে। শীতের প্রকোপ যতোই বাড়তে থাকে, অতিথি পাখি আসার সংখ্যাও বাড়তে থাকে সমানতালে।

এদিকে হেমন্তের শুরুতে থেকেই সিলেটের বাজারগুলোতে উঠেছে শীতের সবজি। বাজারে ঢুকলেই চোখে পড়ে হরেক রকম শীতের সবজি। শীতকালীন সবজির মধ্যে বাজারে উঠেছে বেগুন, ফুলকপি, বটবটি, শিম, টমেটো ও লাউ। গত দুই সপ্তাহ ধরে আগ রাতে গরম অনুভূত হলেও গভীর রাতে মাঝারি মানের শীত অনুভূত হচ্ছে। এই বিরূপ আবহাওয়ার কারনে ভাইরাস জনিত নানা রোগ দেখা দিয়েছে। এসব রোগের মধ্যে- সর্দি, কাশি, জ্বর, মাথা ব্যথা, ডায়রিয়া শাসকষ্ট ও চর্ম রোগ জনিত রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। শীতকে ঘিরে লেপ-তোষকের দোকানগুলোতেও আস্তে আস্তে ভিড় হচ্ছে। নতুন নতুন অর্ডার নিচ্ছেন ব্যবসায়ীরা।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: