সর্বশেষ আপডেট : ৭ মিনিট ১৪ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

শিশুদের জন্য নিরাপদ ইন্টারনেটের অঙ্গীকার

1475150501নিউজ ডেস্ক: রাজধানীর ঢাকা রেসিডেনশিয়াল মডেল কলেজে (ডিআরএমসি) ৭শ’র বেশি শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের নিয়ে ‘কাস্টমার ফার্স্ট ডে’ উদযাপন করেছে গ্রামীণফোন। আজ বৃহস্পতিবার এ দিনটি উদযাপন করল সংস্থাটি।

শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের সাথে সরাসরি যোগাযোগের লক্ষ্যে এবং নিরাপদ ইন্টারনেট সম্পর্কে সচেতনতা বাড়ানোর অঙ্গীকার করতে অনুষ্ঠানটি বিকেল ৩টা থেকে ৫টা পর্যন্ত রেসিডেনশিয়াল কলেজ প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন- ডাক, টেলিযোগাযোগ এবং তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা রেসিডেনশিয়াল মডেল কলেজের অধ্যক্ষ ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আবদুল হান্নান।

অনুষ্ঠানে নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে প্রতিমন্ত্রী এ উদ্যোগটাকে একটি সময়োপোযোগী বলে উল্লখ করেন। তিনি আরও বলেন, ‘এটা নির্ভয়ে বাংলাদেশের মানুষকে ইন্টারনেটের পূর্ণ সম্ভাবনা ব্যবহারে সহায়তা করবে।’

অনুষ্ঠানে গ্রামীণফোনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রাজীব শেঠি তার বক্তব্যে বলেন, ‘পরবর্তী পাঁচ বছরে এশিয়াতে টেলিনরের বাজারের বড় সম্প্রসারণ ঘটবে। আর তরুণরাই হবে ডাটাকেন্দ্রিক টেলিকম খাতের মূল গ্রাহক। এ বাজারে প্রথমবারের মতো প্রায় ৫০ কোটি তরুণের কাছে ইন্টারনেট ব্যবহারের সুযোগ তৈরি হবে এবং তারা অনলাইনে কিভাবে নিরাপদে থাকবে এ নিয়ে তাদের শিক্ষিত করে তোলাই টেলিনরের অন্যতম লক্ষ্য। বর্তমানে বাংলাদেশে সাইবার বুলিংয়ের মাত্রা বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং আমাদের দেশে এ সমস্যা সমাধানে এটি একটি সময়োপযোগী আহ্বান। শীর্ষস্থানীয় ডিজিটাল সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে ডিজিটাল সময়ে তরুণদের সুসজ্জিত করে তোলা এবং ইন্টারনেটের অপব্যবহার সম্পর্কে তাদের শিক্ষাদান আমাদের দায়িত্ব।’

টেলিনরের কার্যক্রম রয়েছে এমন ১৩টি দেশে একযোগে ‘কাস্টমার ফার্স্ট ডে’ উদযাপিত হয়েছে। ‘কাস্টমার ফার্স্ট ডে’ উদ্যোগটি গ্রামীণফোনের কর্মী ও ম্যানেজমেন্ট টিমকে সরাসরি গ্রাহকদের সাথে কথা বলার ও তাদেরকে নিরাপদ ইন্টারনেট নিয়ে জানানো এবং নিরাপদ ইন্টারনেট ব্যবহার নিয়ে অঙ্গীকার করার সুযোগ করে দেয়। এছাড়াও, গ্রামীণফোন ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে অনলাইনে সুরক্ষিত রাখতে চায় এবং শেখার উৎস হিসেবে ডিজিটাল মাধ্যমের শক্তিকে তাদের মধ্যে ছড়িয়ে দিতে চায়।

বৈশ্বিকভাবেই এ বছর কাস্টমার ফার্স্ট ডে’র প্রতিপাদ্য ছিল- ‘নিরাপদ ইন্টারনেট/ডিজিটাল বুলিং’। দেশের শীর্ষস্থানীয় ডিজিটাল সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে, ডিজিটাল মাধ্যমে গ্রাহকের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে এবং ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে সুরক্ষিত রাখতে ‘কাস্টমার ফার্স্ট ডে’ উদ্যোগটিতে ডিজিটাল বুলিং-এর ওপর সচেতনতা বাড়ানোর ওপর জোর দেয়া হয়।

অনুষ্ঠান চলাকালে ঢাকা রেসিডেনশিয়াল মডেল কলেজের শিক্ষার্থীরা নিরাপদে ইন্টারনেট ব্যবহারের নিয়ম অনুসরণ করা এবং দায়িত্বের সাথে ইন্টারনেট ব্যবহার নিয়ে শপথ গ্রহণ করে।

অনুষ্ঠানে সরকারি ও নিয়ন্ত্রক প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিসমূহ এবং গ্রামীণফোন ও ঢাকা রেসিডেনশিয়াল মডেল কলেজের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

আজ সকালে গ্রামীণফোনের শত শত কর্মী দেশজুড়ে এর করপোরেট গ্রাহকদের কাছে নিরাপদ ইন্টারনেটের বার্তা পৌঁছে দিতে দেখা করেন। তারা গ্রাহকদের কিছু নিয়ম ও অনুশীলন সম্পর্কে অবহিত করেন যা তাদের ও তাদের সন্তানদের ইন্টারনেটে নিরাপদে থাকতে সাহায্য করবে এবং ইন্টারনেটে ব্যবহারের সময় গ্রাহকরা কি করবেন এবং কি করবেন না এ সম্পর্কে লিফলেটও বিতরণ করেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: