সর্বশেষ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১২ ফাল্গুন ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

বৈরাগীর সঙ্গে রাজিয়াকে বিয়ে দেন প্রথম স্ত্রী ছবি হাসান

full_1373260140_1474373825ডেইলি সিলেট ডেস্ক:
অভিনেতা ফখরুল হাসান বৈরাগী একটানা চল্লিশ দিন নিখোঁজ থাকায় স্ত্রী রাজিয়া হাসান ঢাকার একটি থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছিলেন। কিন্তু বৈরাগী অজ্ঞাত স্থান থেকে বেরিয়ে এসে জানালেন, তিনি নিখোঁজ হননি বা ছিলেন না। একই সঙ্গে জানালেন, রাজিয়া আমার স্ত্রী নয়, তার সাথে আমার লিভ টুগেদারের সম্পর্ক।

১৯৮৬ সালের ঘটনা। পুতুল নামের এক কিশোরী তখন মঞ্চে বেশ জমিয়ে অভিনয় করছিলেন। সে সময় ফখরুল হাসান বৈরাগীর প্রযোজনায় ‘চম্পাবতী’ নামে একটি ছবি নির্মিত হতে যাচ্ছিল। এই ছবির নায়িকা চরিত্রের জন্য ১৪ বছরের এক মেয়ে খুঁজছিলেন তিনি। বৈরাগী খোঁজ পেয়ে যান পুতুলের। তিনি ভাবেন চম্পাবতীর চরিত্রে এই মেয়ে দারুণ মানিয়ে যাবে। বৈরাগী পুতুলের নাম পাল্টে নাম রাখেন রাজিয়া হাসান। ওই ছবিতে নায়কের ভূমিকায় অভিনয় করেন ইমরান। রাজিয়া হাসানের প্রথম ছবি ‘চম্পাবতী’ মুক্তি পায়। পুতুল হয়ে যান রাজিয়া হাসান। এভাবেই ফখরুল হাসান বৈরাগীর সাথে রাজিয়ার পরিচয়।

তখন বৈরাগীর বাড়িতে রাজিয়ার যাওয়া-আসা ছিলো। বৈরাগীর প্রথম স্ত্রী ছবি হাসান তখন ফুসফুসের সমস্যায় বিছানায়। ছবি হাসানের সেবাযত্নে রাজিয়া ছিলেন নিবেদিতপ্রাণ। আসন্ন মৃত্যুর কথা ভেবে ছবি হাসান সিদ্ধান্ত নিলেন বৈরাগীর সাথে রাজিয়ার বিয়ে দেবেন। বৈরাগীও দ্বিমত করেননি। সে সময়ই বৈরাগীর বাড়িতেই ঢাকার আদালতের (বর্তমানে সিএমএম কোর্ট) এক উকিলকে ডেকে রাজিয়ার সঙ্গে তার বিয়ে পড়ানো হয়। একজন হুজুরকেও আনা হয়েছিল। আইনগত ও ধর্মীয় দুভাবেই বিয়ে সম্পন্ন হয়েছিলো। এভাবেই রাজিয়া হাসান হয়ে গেলেন ফখরুল হাসান বৈরাগীর দ্বিতীয় স্ত্রী। ১৯৯২ সালে ছবি হাসান মারা যান। সংসারের পুরো দায়িত্ব পড়ে রাজিয়া হাসানের ওপর। এর আগে রাজিয়া ‘পালাবার পথে’, ‘গায়ে হলুদ’ নামে দুটি চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেন।

জানা যায়, বৈরাগীর সিনেমার ক্যারিয়ারের দুঃসময়ে সবসময় আগলে রেখেছিলেন এই রাজিয়া হাসান। অভিনয় ছেড়ে ছোটখাটো ব্যবসা শুরু করেন তিনি। জানা যায়, এই ঘরে এক ছেলে ও এক মেয়েও আছে এবং আগের ঘরের বড় মেয়েকেও রাজিয়া নিজে বিয়ে দেন। কিছুদিন আগেও রাজিয়া সন্তানসহ শ্বশুরবাড়িতে ছিলেন। সেখান থেকে ঝামেলা হলে ঢাকার আরেকটি ভাড়া বাসায় ওঠেন। এরপরেই গত ৭ আগস্ট বৈরাগী হঠাৎই নিখোঁজ হন।

এরপর ফখরুল হাসান বৈরাগী ঢাকার কলাবাগান থানায় উপস্থিত হয়ে জানান তিনি নিখোঁজ হননি। এমনকি রাজিয়া হাসানের সাথে বিয়ের সম্পর্কও অস্বীকার করেন। রাজিয়া হাসানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ক্রন্দনরত অবস্থায় বলেন, আমি জানি না, উনি কেনো এমন করলেন। আমার বিশ্বাস বৈরাগী কারো দ্বারা প্রভাবিত হয়ে এইসব কথা বলেছেন। তিনি তার ভুল বুঝে ফিরে আসবেন বলেও জানান রাজিয়া হাসান। বিয়ের বিষয়ে জিজ্ঞসা করা হলে রাজিয়া বলেন, ৩০ বছর কেউ বিয়ে ছাড়া সংসার করতে পারে? নিশ্চই উনি ওনার ভুল বুঝতে পারবেন। আমি এখনো বিশ্বাস করি বৈরাগী ফিরে আসবেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: