সর্বশেষ আপডেট : ২ মিনিট ৫৭ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সর্বজন শ্রদ্ধেয় নেতা সুফিয়ান চৌধুরী : অর্থমন্ত্রী

leednewssupianchoduriiiস্টাফ রিপোর্টার ::
সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি, জেলা পরিষদের সাবেক প্রশাসক আব্দুজ জহির চৌধুরী সুফিয়ানের মতো পরিচ্ছন্ন ও সৎ রাজনীতিবিদ পাওয়া বর্তমান যুগে দুষ্কর বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মহিত এমপি। প্রয়াত আব্দুজ জহির চৌধুরী সুফিয়ানের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে গতকাল রোববার বিকেল ৫টায় সিলেট জেলা পরিষদ মিলনায়তনে সিলেট জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত অনুষ্ঠিত স্মরণসভায় তিনি এ কথা বলেন। অর্থমন্ত্রী বলেন, তিনি যে শুধু সৎ একজন রাজনীতিবিদ ছিলেন এমন নয়; তিনি ছিলেন সর্বজন শ্রদ্ধেয় নেতা। তাঁর প্রতি শ্রদ্ধা জানাতেই আমার ছুটে আসা। সুফিয়ান চৌধুরী ছিলেন শ্রদ্ধা করার মতো একজন রাজনীতিবিদ। আমি তাঁকে শৈশব থেকে ছিনতাম না। তবে তাঁর সম্পর্কে আগে থেকেই আমার জানা ছিল। তিনি ১৯৭৮ সালে আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে জড়িয়েছেন। এর আগে তিনি ন্যাপ করতেন। তিনি ছাত্রজীবন থেকেই একজন মেধাবী নেতা ছিলেন। অর্থমন্ত্রী বলেন, ২০০০ সালে আমার সাথে সুফিয়ান চৌধুরীর সম্পর্ক হয়। আমি তাঁর কাছাকাছি যেতে পারি। তিনি লোভ-লালসার ঊর্ধ্বে একজন নিবেদিত রাজনীতিবিদ ছিলেন। ক্ষমতার প্রতি তাঁর লোভ ছিল না। তিনি পদের কাঙাল ছিলেন না। তিনি ধৈর্যের সাথেই রাজনীতি করেছেন। তিনি প্রতিষ্ঠিত হয়ে রাজনীতিতে বেশি করে সময় দিয়েছেন। রাজনীতি তাঁকে প্রতিষ্ঠিত করেনি। সুফিয়ান চৌধুরী রাজনীতিতে আসার পূর্বে প্রতিষ্ঠিত প্রথম শ্রেণির একজন ঠিকাদার ছিলেন। তখন রাজনীতি করতে হলে অর্থ ব্যয় হতো, আর এখন রাজনীতি করলে ব্যয় হয় না।

pic-finance-minister-1আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, রাজনৈতিক কাজের জন্য তাঁর গাড়ি সব সময় প্রস্তুত থাকত। তিনি বুঝতেন কখন কীভাবে রাজনীতি করতে হয়। একসময় দীর্ঘ বক্তব্য দিতেন সুফিয়ান চৌধুরী। তবে অতি গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্যই তাঁর কাছ থেকে পাওয়া যেতে। তিনি ২০১০ সালে যখন সভাপতি হলেন, তখন আর দীর্ঘ বক্তব্য দিতেন না। ৪ থেকে ৫ মিনিটে তাঁর বক্তব্য শেষ করতেন। তবে সেই বক্তব্যে শিক্ষণীয় অনেক কিছুই থাকত। অর্থমন্ত্রী বলেন, নিউইয়র্কে অসুস্থাবস্থায় তাঁর সাথে আমার দেখা হলে তিনি বলেছিলেন, চিকিৎসার সকল কাজ সম্পন্ন হয়েছে, এখন তিনি দেশে ফিরতে চান। তখন আমি খুব চিন্তিত ছিলাম। ভাবছিলাম, দেশে গিয়ে তাঁকে পাব কি না। আল্লাহর রহমতে দেশে ফিরে তাঁকে পেয়েছি। তিনি যখন মারা গেলেন, তখন তাঁর জানাজায় এসে মনে হয়েছে আজ একজন ভালো মানুষের জানাজায় অংশ নিলাম। এক কথায় বলা যায়, বর্তমান যুগে তাঁর মতো রাজনীতিবিদ পাওয়া খুব কঠিন। তাঁকে হারিয়ে আওয়ামী লীগের অফুরান ক্ষতি হয়েছে।
সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মাহমুদ-উস-সামাদ চৌধুরী এমপির সভাপতিত্বে ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খানের পরিচালনায় স্মরণসভায় প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ।
আরো বক্তব্য রাখেন মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক সিটি মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, জেলার সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগরের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদ, সাবেক এমপি সৈয়দা জেবুন্নেছা হক, সিলেট জেলা বারের সভাপতি একেএম শামিউল আলম, জেলা যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক খন্দকার মহসিন কামরান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আফসর আজিজ, মহানগরের সাধারণ সম্পাদক দেবাংশু দাস মিঠু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ এবং প্রয়াত সুফিয়ান চৌধুরীর ছোটভাই এ কাদির চৌধুরী।
অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের জাতীয় কমিটির সদস্য আ.ন.ম. শফিকুল হক, জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আজিজ আহমদ সেলিম, যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. আহমদ আল কবির, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, জেলার সহসম্পাদক অ্যাডভোকেট নিজাম উদ্দিন, দক্ষিণ সুরমা উপজেলা চেয়ারম্যার আবু জাহিদ, মহানগর আওয়ামী লীগের শিক্ষা সম্পাদক আজাদুর রহমান আজাদ, জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর উপসম্পাদক জগলু ছৌধুরী, জেলার প্রচার উপসম্পাদক মোস্তাক আহমদ পলাশ, মহানগর যুবলীগের আহ্বায়ক আলম খান মুক্তি, মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রাহাত তরফদার প্রমুখ।
এর আগে অর্থমন্ত্রী প্রয়াত সুফিয়ান চৌধুরীর ছোটভাই এ কাদির চৌধুরী সম্পাদিত ‘জননেতা আব্দুজ জহির চৌধুরী সুফিয়ান স্মারকগ্রন্থ হৃদয়ে রয়েছ গোপনে’ মোড়ক উন্মোচন করেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: