সর্বশেষ আপডেট : ৯ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ১৭ জানুয়ারী, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৪ মাঘ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

হাসপাতালের বিছানাকেই স্টেজ বানিয়ে গাইলেন লাকী!

laki-coverনিউজ ডেস্ক : যেখানেই সীমান্ত তোমার, সেখানেই বসন্ত আমার। ভালোবাসা হৃদয়ে নিয়ে, আমি বারেবার আসি ফিরে, ডাকি তোমায় কাছে। হাসপাতালের বিছানায় সুয়ে গানটি গাইলেন লাকি আখন্দ। সুয়ে সুয়েই বাজালেন গিটার।
ফুসফুসে ক্যান্সার বাসা বাঁধলেও এখনও যে মনের জোর কেড়ে নিতে পারেনি সেটিই ভক্তদের জানিয়ে দিলেন কালজয়ী এই শিল্পি। এ যেন ক্যান্সারের প্রতি লাকীর বার্তা, আমাকে হাসপাতালের বিছানায় সুইয়ে দিলে সেটিকেই স্টেজ বানিয়ে কনসার্ট করবো। ভিডিওটি দেখে আরেকবার ভক্তদের চোখে জল। এই কান্না কোনও প্রিয়তমার বিরহে নয়, না গানের কথার জন্য। এবারের কান্না শিল্পির জন্য। এই গানের সুরকারের জন্য। প্রিয়তমার সীমান্তে বসন্ত হয়তো আসছে ফাল্গুনেই আসবে তবে লাকীর জীবনে আরেকটি বসন্ত আনতে ভক্তদের যত প্রার্থনা।

গানটির ভিডিও সোস্যাল মিডিয়ায় আসার সঙ্গে সঙ্গেই ভাইরাল হয়ে পড়ে। গানটির ভিডিও দেখেই অনেকে চোখের জল ধরে রাখতে পারেননি বলেও জানিয়েছেন। সোস্যাল মিডিয়ায় লাকীর জন্য কয়েকটি শুভকামনা বার্তা তুলে ধরা হলো :
শরিফুল হাসান, ‘সুস্থ হয়ে উঠুন স্যার। দ্রুত।’

স্নিগ্ধা সাদিক, “দীপ জ্বালা রাত, জানি আসবে আবার, কেটে যাবে জীবনের সকল আঁধার।”
ইশারাত চৌধুরি, “দ্রুত সুস্থ্য হয়ে উঠুন, অনেক শুভকামনা। আল্লাহর কাছে দু’য়া করি আপনি যেন দ্রুত আরোগ্য লাভ করেন। আপনার কণ্ঠে আবারও সেসব
ভিন্নধর্মী কালজয়ী গান শুনতে চাই।”
লায়লা তাজনূর, “গায়ে কাঁটা দিয়ে উঠলো, চোখের পাতাও ভিজে উঠলো।”
রাজকুমার দীপঙ্কর, “স্তব্ধ করে দিলেন!!! ভাল হয়ে ফিরে আসেন আমাদের মাঝে।”
সাজ্জাদ রহমান, “অমর এক সৃষ্টিকর্ম। লিজেন্ডকে এই অবস্থায় গাইতে দেখে সত্যিই আবেগতাড়িত হয়ে গেলাম! আবার ফিরে আসুন, বস।”

মোরশেদ আলম, “কিভাবে রক্তে মিশে আছে গান!! এরই নাম লাকী আকন্দ!! হ্যাটস অফ টু ইউ!!”
রাজীব হাসান, “মেঘের আড়ালে ভালবাসা লুকাতে পারে, কিন্তু আপনি আড়াল হতে পারেন না। আপনার সুস্থতা কামনা করি। সেই সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আপনার চিকিৎসার সহযোগীতার কামনা করছি। আপনি আমাদের সবার লাকী আকন্দ।”
আসাদ ইকবাল সুমন, “শিল্পীর শক্তিকে ঘায়েল করার মতো কোন অসুখ এখনো জন্মায় নাই।”
শামিম, “দ্রুত সুস্থ হয়ে আমাদের মাঝে ফিরে আসুন। আবার মুগ্ধ করে রাখার পুরানো দায়িত্বটা পালন করুন নতুন নতুন গানে যেমনটি করে এতদিন রেখেছিলেন।”

ইফতেখার মাহমুদ, “লাকী আকন্দের অদম্য প্রাণশক্তি যেন বার বার হারিয়ে দিচ্ছিলো, বেয়াড়া কর্কটরোগকে। জয় হোক মানুষের, জরার হোক পরাজয়।”

২০১৫ সালের ১ সেপ্টেম্বর শারীরিক অসুস্থ্যতা জন্য লাকী আখন্দকে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি করা হলে তাঁর ফুসফুসে ক্যান্সার ধরা পড়ে। এরপর উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ব্যাংককের পায়থাই হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসা শেষ করে চলতি বছরের ২৬ মার্চ দেশে ফেরেন তিনি। ফেরার পর কিছুটা সুস্থ্য ছিলেনও কিছুদিন হঠাৎ কোমর ব্যথা অনুভূত হওয়ায় আবারও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এখন তিনি বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসাধীন আছেন।

ইতিমধ্যেই শিল্পির চিকিৎসার খরচ যোগাতে নিজ নিজ পর্যায় থেকে কাজ করেছেন তরুণ ভক্ত ও শিল্পি সমাজ। পাশে দাঁড়িয়েছেন দেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও। ব্যক্তিগত সহায়তা নিয়েও অনেকে শিল্পীকে ভালোবাসা প্রদর্শন করছেন।-আমাদের সময়.কম

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: