সর্বশেষ আপডেট : ২৩ মিনিট ২৭ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

দারুণ জয় নিয়ে ফাইনালে চ্যানেল এস

dailysylhetnewssp-6যমুনা টেলিভিশনের বিপক্ষে ৩-১ গোলের দারুণ জয় নিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে মাহা ইমজা মিডিয়া কাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের শক্তিশালী দল চ্যানেল এস। রোববার সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনালে তার শুরু থেকেই যমুনা টিভির বিপক্ষে প্রভাব বিস্তার করে খেলতে থাকে। তবে ম্যাচ প্রথমার্ধের শেষ দিকে চেপে বসে যমুটা টিভিও।

বিপুল সংখ্যক দর্শকের উপস্থিতিতে বিকেল ৫ টায় শুরু হয় টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনাল। এ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন চ্যানেল এসের বিপরীতে ফাইনালের লক্ষে খেলতে নামে বি গ্রুপের রানারআপ যমুনা টিভি। তবে শুরুতে জ্বলে ওঠতে পারেনি দলের খেলোয়াড়রা। টুর্নামেন্টের এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ গোলদাতা গোপাল বর্ধন ম্যাচের অনেকটা সময়ই ছিলেন নিজের ছায়া হয়ে। এসময় একের পর এক আক্রমণ চালিয়ে যেতে থাকে চ্যানেল এস। মধ্যমাঠে দলীয় অধিনায়ক মঈন উদ্দিন মনজু আর ফরোয়ার্ডে শফি ও শামীমের একের পর এক আক্রমণে নাস্তানাবুদ হতে হয় যমুনার রক্ষণভাগকে। তবে চ্যানেল এসের সামনে বাধার দেয়াল হয়ে দাড়ান যমুনা টিভির গোলকিপার নিরানন্দ পাল।

ম্যাচের ১৫ মিনিটের মাথায় মাঝ মাঠ থেকে বল নিয়ে তিনজনকে খেলোয়াড়কে পরাজিত করে বাকানো শটে যমুনার জালে বল জড়ান চ্যানেল এসের মারুফ। তার দুর্দান্ত শটটি জালে জড়িয়ে যেতে চেয়া দেখা ছাড়া আর কিছুই করার ছিল না গোলকিপার নিরানন্দর।

এক গোলে পিছিয়ে পড়ার পর জ্বলে ওঠেন যমুনার আক্রমণভাগও। এসময় যমুনার মঈনউদ্দিনের একটি শট গোলবারে লেগে ফিরে আসলে সমতা আনতে পারেনি তারা। তবে প্রথমার্ধ শেষের দু মিনিট আগে চমক দেখান গোপাল বর্ধন। ডান পাশ থেকে একাই চারজন খেলোয়াড়কে পরাজিত করে তিনি রক্ষণচেরা বল এগিয়ে দেন স্ট্রাইকিংয়ে থাকা দিপু বৈদ্যর দিকে। বল প্রতিপক্ষের জালে জড়াতে একটুও ভুল করেননি দিপু। প্রথমার্ধ শেষ হয় ১-১ গোলের সমতায়।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে আবারো একের পর এক আক্রমণ চালায় যমুনা। তবে এবার বাধা হয়ে দাড়ান চ্যানেল এসের গোলকিপার বেলাল আহমদ। দক্ষ পাহারাদারের মতো একের পর এক আক্রমণ প্রতিহত করেন তিনি। এই সুযোগে পাল্টা আক্রমণে নামে চ্যানেল এস। রক্ষণভাগকে বোকা বানিয়ে দারুণ শটে যমুনার জালে বল জড়ান সারা মাঠ দাপিয়ে খেলতে থাকা শামীম।

দ্বিতীয় গোল হজমের পর খেলার খেই হারিয়ে ফেলে যমুনা টিভি। একের পর খেলোয়াড় বদল করলেও তারা আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি। এসময় অখেলোয়াড়সুলভ আচরণের জন্য হলুদ কার্ড দেখানো হয় চ্যানেল এসের মারুফকে। তবে ডি বক্সের বাইরে থেকে চোরাশটে গোল করে বসেন চ্যানেল এসের ডিফেন্ডার লিটন। খেলা শেষ হয় ৩-১ গোলের ফলাফলে।

সোমবার দ্বিতীয় সেমিফাইনালের বিজয়ীর সাথে ফাইনাল ম্যাচ খেলবে চ্যানেল এস।

ম্যাচ শেষে চ্যানেল এসের শামীমকে ম্যান অব দ্যা ম্যাচ ঘোষণা করা হয়।

টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে কাল মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ প্রতিদিনি ও দৈনিক সংবাদ। দুই শক্তিশালী দলের মধ্যকার ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে বিকেল ৪ টায়, সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে।
-বিজ্ঞপ্তি

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: