সর্বশেষ আপডেট : ৯ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড আগে
শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

শিক্ষার্থীদের হল বন্ধ করে বিদেশ ভ্রমণে শাবি উপাচার্য

sust120160902214253ডেইলি সিলেট ডেস্ক:
সিন্ডিকেট বৈঠক ছাড়া ক্লাস-পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে মাত্র ছয় ঘণ্টার নোটিশে শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দিয়ে এখন বিদেশ ভ্রমণে যাচ্ছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আমিনুল হক ভূঁইয়া।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক সূত্রে জানা গেছে, আগামীকাল শনিবার তিনি মিয়ানমারের উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন। এদিকে সিন্ডিকেট ছাড়া হল ত্যাগের নির্দেশকে ‘অবৈধ‘ বলে মনে করছেন সাবেক সিন্ডিকেট সদস্যরা।

২০১৪ সালের ২০ নভেম্বর ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে একজন নিহত হওয়ার দুইদিন পর শাবি উপাচার্য ড. আমিনুল হক ভূঁইয়া তদন্ত কমিটির একজন সদস্যকে নিয়ে ভারত সফরে যান। যার ফলে ওই ঘটনার তদন্ত কাজ ব্যাহত হওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

উপাচার্যের বিদেশ ভ্রমণের বিষয়টি স্বীকার করে শুক্রবার দুপুর ২টার দিকে রেজিস্ট্রার মো. ইশফাকুল হোসেন বলেন, উপাচার্য কবে যাচ্ছেন তা আমার জানা নেই। তবে তিনি ব্যক্তিগত ভ্রমণে মায়ানমার যাচ্ছেন। এ সময়টাতে কোষাধ্যক্ষ ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। তবে উপাচার্যের সফরসঙ্গী হিসেবে কে কে আছেন সেটা তিনি জানাতে পারেননি।

যোগাযোগ করা হলে কোষাধ্যক্ষ ড. ইলিয়াস উদ্দিন বিশ্বাস জানান, তিনি শনিবার থেকে দশ তারিখ পর্যন্ত ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। উপাচার্য আজ ঢাকা যাচ্ছেন বলে একটা চিঠি পেয়েছেন বলেও জানান তিনি।

এদিকে সংক্ষিপ্ত নোটিশে হল বন্ধের সিদ্ধান্তের ফলে ভোগান্তিতে পড়েছেন শিক্ষার্থীরা। তাছাড়া ৩৬তম বিসিএস লিখিত পরীক্ষা দিচ্ছেন এমন অনেক শিক্ষার্থীও হলে রয়েছে।
আবাসিক শিক্ষার্থীরা জানায়, সংক্ষিপ্ত নোটিশে আমাদেরকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে হল ছাড়তে বলা হয়েছিল। তবে তাদের ক্লাস শেষ করে রুমে ফিরতে ৬টা বেজে যায়। তাছাড়া একই দিন সিভিল অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে ৪টা থেকে রাত ৭টায় শেষ হয়। ফলে তৈরি হতে স্বাভাবিকভাবে দেরি হয়। এদিকে সন্ধ্যা ৬টার আগে শাহপরান হলের বিদ্যুৎ ও পানি সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয় হল প্রশাসন।

ছাত্ররা অভিযোগ করে জানান, তাদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করে রুম থেকে বের করে দিয়েছেন শাহপরাণ হলের সহকারী প্রভোস্ট। এমনকি বেশ কয়েকটি রুমে ধাক্কা দিয়ে দরজা খোলেন শিক্ষকরা। তবে কোনো ধরনের অসৌজন্যমূলক আচরণের ঘটনা ঘটেনি বলে জানান হলের সহকারী প্রভোস্ট ওমর ফারুক।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: