সর্বশেষ আপডেট : ৪ মিনিট ১৫ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

‘তামিম বিদেশে অন্তত ৭০টি খুনের সঙ্গে জড়িত’

full_1481598554_1472534760নিউজ ডেস্ক: কানাডিয়ান সংবাদমাধ্যম দ্য গ্লোব অ্যান্ড মেইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড নিহত তামিম চৌধুরী বিদেশে অন্তত ৭০ খুনের সঙ্গে জড়িত। তবে কোন কোন খুনের সঙ্গে তিনি জড়িত সে ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু বলা হয়নি। নারায়ণগঞ্জে শনিবার পুলিশের অভিযানে মারা যান তামিম চৌধুরী।

প্রতিবেদনে কানাডার ক্যালগেরিতে থাকার সময় তামিম চৌধুরী কীভাবে সময় ব্যয় করেছেন সে বিষয়ে বিশ্লেষণ করা হয়। এতে দেখা যায়, তামিম চৌধুরী দুটি বড় হামলার সঙ্গে জড়িত ছিলেন। ক্যালগেরির স্থানীয় এক ইমাম নাভিদ আজিজ তামিম চৌধুরীর সঙ্গে উগ্রপন্থীদের যোগাযোগ থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে কানাডা সরকার তদন্ত করলে বিষয়টি বেরিয়ে আসবে।

সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত কানাডিয়ান নাগরিক তামিম চৌধুরী তিন বছর আগে বাংলাদেশে আসেন। কানাডাতেও তার বিরুদ্ধে জঙ্গি কার্যকলাপে জড়িত কিছু ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ রাখার অভিযোগ রয়েছে। এক দশক আগে তামিম চৌধুরী কানাডার উইন্ডসোরে বসবাস করতেন। সেখানে তিনি স্কুল ও বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ শেষ করেন। উইন্ডসোরে থাকাকালীন তামিম চৌধুরী ২০০৯ সালে বাংলাদেশ ভ্রমণে আসেন। এ ছাড়া তিনি ওই সময় ইউনিভার্সিটি অব উইন্ডসোরে ইমাম নাভিদ আজিজের দুই সপ্তাহব্যাপী ইসলাম ধর্মবিষয়ক ক্লাস করেন।

ইমাম আজিজ এ বিষয়ে বলেন, তামিম চৌধুরী ছিল খুবই ভালো ছাত্র। কিন্তু প্রথমে তাকে দেখে মনে হয়নি তিনি জঙ্গি কার্যকলাপের সঙ্গে জড়িত। তিনি ছিলেন খুবই শান্ত ও ভদ্র স্বভাবের। ২০১২ সালে ইমাম আজিজ ‘ইসলামিক ইনফর্মেশন সোসাইটি অব ক্যালগেরিতে চাকরি নেন। সেখানে শুক্রবারের প্রথম ধর্মীয় বক্তৃতায় তিনি তামিম চৌধুরীকে দেখে বিস্মিত হন। কারণ ওই সময় ইমাম আজিজ তার মধ্যে অনেক পরিবর্তন দেখতে পান। এরপর তামিম চৌধুরী আলবার্টাতে চলে যান।

তামিমের সঙ্গে আরও ৬ জঙ্গি বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে লড়াই করেন। এদের মধ্যে সালমান আশরাফি নামে একজন ইরাকে আত্মঘাতী হামলা করে ৪৬ জনকে হত্যা করেন। ফারাহ মোহাম্মদ শিরদন নামে আরেকজন এক টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে নিজে ইসলামিক স্টেটের কর্মী বলে পরিচয় দেন। তিনি মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাকে হুশিয়ারি দেন হোয়াইট হাউসে আইএসের পতাকা ওড়ানো হবে। ক্যালগেরি ক্লাস্টারের অপর দুই ভাই কলিন ও গগরি গর্ডন আইএসের হয়ে যুদ্ধ করতে গিয়ে ২০১৪ সালে মারা যান।

নারায়ণগঞ্জের পাইকপাড়ায় জঙ্গি আস্তানায় অভিযানে নিহত তামিম আহমদ চৌধুরীকে এক বছরের বেশি সময় ধরে খুঁজছিল পুলিশ। নব্য জেএমবির সদস্যরা তামিমের নাম জানালেও সংগঠনে তার ভূমিকা ও বিস্তারিত পরিচয় জানত না। গত ফেব্রুয়ারিতে তামিমের ব্যাপারে নিশ্চিত তথ্য পায় পুলিশ।

হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলার পরিকল্পনা হয় গত এপ্রিলে। ওই হামলার মূল পরিকল্পনাকারী ছিল তামিম। তার মাধ্যমেই নব্য জেএমবি জঙ্গিদের হাতে একে-২২ রাইফেলসহ আধুনিক সব অস্ত্র, বোমা ও অর্থের জোগান এসেছে। তামিমের পরিকল্পনা বাস্তবায়নে প্রধান সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করেছে পলাতক মারজান।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: