সর্বশেষ আপডেট : ৪৫ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

ছাতকে কলেজ ছাত্র খুনের ঘটনায় বাড়ি ছাড়া অর্ধশতাধিক পরিবার

unnamed-82ছাতক প্রতিনিধিঃ
ছাতকে সংঘর্ষে কলেজ ছাত্র রিমন আহমদ(১৮) হত্যার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় নিহতের চাচা মমতাজ উদ্দিন বাদী হয়ে একই গ্রামের আব্দুস সোবহান, আব্দুস সাত্তারসহ ২০জনের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা মামলা(নং-২৭) দায়ের করেন।

এদিকে রিমন হত্যাকান্ডের পর থেকে সেনপুর গ্রামের অর্ধশতাধিক পরিবার ঘর ছাড়া হয়েছে। গ্রেফতার আতংকে প্রতিপক্ষের লোকজন স্বপরিবারে এলাকা ত্যাগ করে আত্মগোপনে রয়েছে বলে জানা যায়। ময়না তদন্ত শেষে বৃহস্পতিবার বিকেলে গ্রামের মসজিদ মাঠে জানাযার পর নিহত রিমন আহমদের লাশ পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

অপরদিকে গ্রেফতার এড়াতে প্রতিপক্ষের লোকজন পরিবার-পরিজন নিয়ে এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যাওয়ায় কতিপয় স্বার্থান্বেষী মহল বৃহস্পতিবার রাতে ঘর ছাড়া মানুষের বসতঘর ভাংচুর ও লুটপাট করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। লুটপাটকারীরা টিনের চালা, গরু, ছাগলসহ গবাদি পশু, ধান-চাল, আসবাবপত্র লুট করে নিয়েছে। পালিয়ে থাকা ভুক্তভোগী আব্দুস সোবহান মুটোফোনে জানান, তিনি পরিবারসহ গ্রামের আশিক মিয়া, জোয়াদ আলী, আব্দুস ছালাম, আলী হোসেন, ফারুক মিয়া, নুরুল ইসলাম, আবু বক্কর, সজল দাসসহ অন্তত ৫২টি পরিবার পুলিশের ভয়ে গ্রাম ছেড়ে পালিয়েছে।

পালিয়ে থাকা লোকজনের বসতঘর ও মালামাল রক্ষার জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন তারা। দক্ষিন খুরমা ইউনিয়নের সেনপুর গ্রামের মৃত ইসহাক আলীর পুত্র রইছ উদ্দিন ও একই গ্রামের মৃত মনোহর আলীর পুত্র আব্দুস সোবহানের মধ্যে দীর্ঘদিনের ভুমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মঙ্গলবার দু’পক্ষের সংঘর্ষে গ্রামের রইছ উদ্দিনের পুত্র ও জাউয়াবাজার ডিগ্রী কলেজের একাদশ শ্রেনীর ছাত্র রিমন আহমদসহ কয়েক জন আহত হয়।

গুরুতর আহত রিমন আহমদ সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার ভোরে মারা যায়। তার মৃত্যু সংবাদ এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে উত্তেজিত হয়ে রিমন পক্ষের লোকজন প্রতিপক্ষের অন্তত ১০টি বসতঘরে অগ্নি সংযোগ করে। অগ্নিকান্ডের ঘটনায় শাহানা বেগম(৪০), হুসনা বেগম(৩০) স্বরূপা বেগম(৩৫), সাবিনা বেগম(১৫)সহ অন্তত ১০ নারী-শিশু আহত হয়। ছাতক থানার ওসি আশেক সুজা মামুন হত্যা মামলা দায়েরের সত্যতা স্বীকার করেছেন। ।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: