সর্বশেষ আপডেট : ৫৬ মিনিট ৭ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

কিবরিয়া হত্যার বিস্ফোরক মামলা : পরবর্তী তারিখ ২৫ সেপ্টেম্বর

2.-daily-sylhet-bochar-news4হবিগঞ্জ প্রতিনিধি::
সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া হত্যার বিস্ফোরক মামলার পরবর্তী তারিখ আগামী ২৫ সেপ্টেম্বর নির্ধারণ করেছেন হবিগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ এবং বিশেষ ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক মো. আতাবুল্লাহ। মঙ্গলবার মামলার নির্ধারিত তারিখে উক্ত মামলায় উচ্চ আদালত থেকে জামিনে থাকা ৮ আসামির মধ্যে ৭ জন আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে কিবরিয়া হত্যার ঘটনায় বিস্ফোরক মামলায় পলাতক ৯ জনের মধ্যে ৮ জনের মালামাল ক্রোকের আদেশ দেয়া হলেও পলাতক আসামি মুফতি শফিকুর রহমানের মালামাল ক্রোকাদেশ এখনও তামিল হয়নি।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, কিবরিয়া হত্যার বিস্ফোরক মামলায় মোট ৩২ জন আসামি রয়েছেন। এর মধ্যে সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর, সিলেটের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, হবিগঞ্জের মেয়র জিকে গউছ ও হুজি নেতা মুফতি হান্নানসহ ১৫ জন দেশের বিভিন্ন কারাগারে আটক আছেন।

পলাতক আছেন খালেদা জিয়ার সাবেক রাজনৈতিক সচিব হারিছ চৌধুরী, মুফতি শফিকুর রহমান ও মাওলানা তাজ উদ্দিনসহ ৯ জন। আর উচ্চ আদালত থেকে জামিনে রয়েছেন সাবেক বিএনপি নেতা একেএম আব্দুল কাইয়ূমসহ ৮ জন। জামিনে থাকাদের মধ্যে একেএম আব্দুল কাইয়ূম ছাড়া বাকি ৭ জন মঙ্গলবার মামলার নির্ধারিত দিনে আদালতে হাজির ছিলেন। অপরদিকে পলাতক ৯ জনের মাঝে ৮ জনের মালামাল ক্রোকাদেশ তামিলের প্রতিবেদন ইতোমধ্যে আদালতে এসেছে।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) সিরাজুল হক চৌধুরী জানান, পলাতক মুফতি শফিকুর রহমানের মালামাল ক্রোকাদেশ তামিলের প্রতিবেদন এখনও আসেনি। এ প্রতিবেদন এলে পলাতকদের বিষয়ে সংবাদপত্রে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হবে। এরপর অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে বিচার কার্য শুরু হবে।

উল্লেখ্য, ২০০৫ সালের ২৭ জানুয়ার হবিগঞ্জ সদর উপজেলা বৈদ্যের বাজারে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভা শেষে ফেরার পথে গ্রেনেড হামলায় নিহত হন সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া ও তার ভাতিজা শাহ মঞ্জুর হুদাসহ ৫ জন। এ ঘটনায় হত্যা এবং বিস্ফোরক আইনে পৃথক দু’টি মামলা দায়ের করা হয়। উভয় মামলাতেই একাধিকবার তদন্ত হয়।

সর্বশেষ তদন্তকারী কর্মকর্তা সিআইডির সিলেটের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মেহেরুন্নেছা পারুল দীর্ঘদিন তদন্ত শেষে উভয় মামলায়ই ৩২ জনকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন। হত্যা মামলাটি বর্তমানে সিলেট দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে বিচারাধীন আছে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: