সর্বশেষ আপডেট : ৮ মিনিট ১০ সেকেন্ড আগে
বৃহস্পতিবার, ২৪ অগাস্ট, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ৯ ভাদ্র ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

সৌদি আরবে নিহত ৪ বাংলাদেশির মৃত্যুতে গ্রামের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম

Natore Pic 11-08-16নিউজ ডেস্ক: সৌদি আরবের একটি সোফা তৈরির কারখানায় আগুনে পুড়ে ৪ নাটোরের নলডাঙ্গা উপজেলার ৪ জনের মৃত্যুর ঘটনায় তাদের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম।

বুধবার (১০ আগস্ট) বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে সৌদি আরবের হারাজ বিন কাশেম মানফুহা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটলে রাত সাড়ে দশটার দিকে মৃতদের খবর গ্রামের বাড়ি নলডাঙ্গা এলাকার খাজুরা এলাকায় পৌছায়।

মৃত ব্যক্তিরা হলেন, নলডাঙ্গা উপজেলার খাজুরা শ্রীপুরপাড়া গ্রামের সৈয়দ আলীর ছেলে শামিউল ইসলাম ওরফে সাদ্দাম হোসেন (৩৪), খাজুরা জর্ণাদ্দনবাটি গ্রামের গফুর মোল্লার ছেলে জামাল হোসেন মোল্লা (৪৫), আজের আলীর ছেলে অসীম (২৭) ও খাজুরা ভাটোপাড়া গ্রামের সেকেন্দার আলীর ছেলে আমিরুল ইসলাম (৩৫)।

নিহতদের পরিবার সূত্র জানায়, সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদের পুরাতন শহর হারাজ বিন কাশেম মানফুহা এলাকায় একটি কারখানায় সোফা তৈরির কারখানায় কাজ করতেন ওই ৪ ব্যক্তি।

বুধবার বিকেলে কাজ করার সময় এয়ারকুলারে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটে আগুন ধরে চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে স্থানীয় ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা তাদের উদ্ধারের চেষ্টা করেন। তার আগেই পুড়ে তাদের মৃত্যু হয়।

মৃত অসীমের বাবা আজের আলী জানান, তার উপার্জনক্ষম ছেলেটিকে হারিয়ে পরিবারের সবাই ভেঙে পড়েছে। অন্যদেরকেও শান্তনা দিয়ে রাখা যাচ্ছে না।

খাজুরিয়া গ্রামের অধিবাসী বকুল মাস্টার জানান, ৪জনের মৃত্যুর খবর পৌঁছানোর পরই খাজুরিয়া এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। পরিবারগুলোতে চলছে শোকের মাতম।

খাজুরা ইউপি চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান জানান, রাত ১০টার সময় নিহতদের পরিবার তাকে এ খবর জানায়। এ খবরে পুরো এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: