সর্বশেষ আপডেট : ৫ ঘন্টা আগে
শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

পাকিস্তানে হাসপাতালে হামলায় নিহত বেড়ে ৬৩

pakisthan1470657272আন্তর্জাতিক ডেস্ক: পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশের রাজধানী কোয়েটায় হাসপাতালে হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছ ৬৩ জনে। আহত অর্ধশতাধিক লোক বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির গণমাধ্যমগুলো।

কোয়েটার সিভিল হাসপাতালে সোমবার সকালের এ হামলার দায় এখনো কোনো পক্ষ স্বীকার করেনি। তবে বেলুচিস্তান প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জেহরি দাবি করেছেন, তার প্রদেশে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের নেপথ্যে রয়েছে ভারতের শীর্ষ গোয়েন্দা সংস্থা রিসার্চ অ্যান্ড অ্যানালাইসিস উইং (আরএডব্লিউ বা র)। কিন্তু এর পক্ষে কোনো তথ্যপ্রমাণ দেননি তিনি।

মুখ্যমন্ত্রী জেহরি আরো বলেন, ‘সন্ত্রাসীরা হাসপাতালের মতো স্পর্শকাতর স্থাপনায় হামলা চালাচ্ছে, যা যুদ্ধের সময়ও দেখা যায় না।’ সন্ত্রাসবাদের শেকড় উপড়ে ফেলার হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

হাসপাতালে হামলার আগে কোয়েটার মানো জান রোডে বন্দুক হামলার শিকার হন বেলুচিস্তান বার অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট বিলাল কাসি। এতে আহত হন বারের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট বাজ মোহাম্মদ কাকার।

বিলাল কাসির দেহ সিভিল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনা হলে সেখানে তার স্বজন, সহকর্মী ও শুভানুধ্যায়ীরা জড়ো হন। তখন বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।

কোয়েটা পুলিশ জানিয়েছে, এটি একটি আত্মঘাতী হামলা। হামলায় ব্যবহার করা হয় ৮ কিলোগ্রাম বিস্ফোরক। প্রত্যক্ষদশীরা জানিয়েছেন, বিস্ফোরণে প্রচন্ড শব্দে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে চারপাশে।

বোমা বিস্ফোরণের পর কয়েকজন অস্ত্রধারী সেখানে এলোপাতাড়ি গুলি চালায়। ঘটনার পর হাসপাতাল ঘিরে ফেলে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, জ্যেষ্ঠ দুই আইনজীবীর ওপর হামলার খবর শুনে হাসপাতালে ছুটে আসেন আইনজীবী ও সাংবিদকরা, যাদের অধিকাংশ এ হামলায় হতাহত হয়েছেন। আজ নিউজের একজন ক্যামেরাম্যান নিহত এবং ডন নিউজের একজন ক্যামেরাম্যান আহত হয়েছেন।

হাসপাতাল ঘিরে রেখেছে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এর আপশাশে মোবাইল ফোন নেটওয়ার্ক বন্ধ রাখা হয়েছে। সিভিল হাসপাতালে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।

বেলুচিস্তানের রাজধানী শহর প্রায়ই সন্ত্রাসী হামলার স্বীকার হয়। মে মাসে বেলুচিস্তান বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলায় দুজন নিহত হন।

হাসপাতালের হামলার নিন্দা জানিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ। তিনি বলেছেন, ‘কাউকে বেলুচিস্তানের বিঘœ ঘটাতে দেওয়া হবে না।’

পাকিস্তান সুপ্রিম কোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশন সপ্তাহব্যাপ শোক কর্মসূচি ঘোষণা করেছে। লাহোরের আইনজীবী হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: