সর্বশেষ আপডেট : ৪ মিনিট ৪৯ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ২৫ জুলাই, ২০১৭, খ্রীষ্টাব্দ | ১০ শ্রাবণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

প্রথম দিনের অভিযানে হাতির দেখা পায়নি ভারতীয় দল

215800Elephant_Kalerkantho_picনিউজ ডেস্ক: বৃহস্পতিবার দুপুর ২ টা থেকে চেষ্টা করেও হাতির অবস্থানে পৌছাতে পারেনি হাতি উদ্ধারে আসা ভারতীয় প্রতিনিধি দল। ভারতীয় দলে রয়েছেন আসামের হাতি বিশেষজ্ঞ ও বন কর্মকর্তা রিতেশ ভাট্টচার্য, হাতি বিশেষজ্ঞ কৌশিক বাড়ুয়া, আসামের গোয়াল পাড়ার ডিএফও এসএ তালুকদার।

অসীম মল্লিকের নেতৃত্বে ১৭ সদস্যের উচ্চ পর্যায়ের একটি টিমও ভারতীয় উদ্ধারকারীর দলের সাথে রয়েছেন। কামারাবাদ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুনছের খান জানান, বর্তমানে হাতিটি সরিষাবাড়ী উপজেলার ভাটারা ইউনিয়নের কৃষ্টপুর গ্রামের ঘনবসতিপুর্ন লোকালয়ে আছে। হাতিটি বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত কামারাবাদ, সিধুলী ও ভাটারা ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে প্রায় ১৫ কিলোমিটার বন্যা কবলিত এলাকায় ছটাছুটি করেছে। এ সময় হাতি আতংকে বিভিন্ন গ্রামের মানুষ টিন পিটিয়ে শব্দ করে হাতি তাড়ানো চেষ্টা করেছে।

প্রথম দিনে অভিযান শেষে ভারতীয় দল হাতির অবস্থান নিশ্চিত বা হাতির কাছাকাছি অবস্থানে পৌছাতে পারেনি। বাংলাদেশ হাতি উদ্ধার দলের প্রধান আসীম মল্লিক জানান, দিনের আলো কমে আসায় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় হাতি উদ্ধারের কর্মকান্ড স্থগিত করে উভয় প্রতিনিধি দল সরিষাবাড়ী উপজেলা শহরে ফিরে গেছেন।

উল্লেখ্য, বন্য হাতিটি গত ২৮ জুন ভারতের আসাম থেকে বাংলাদেশের কুড়িগ্রাম জেলা দিয়ে প্রবেশ করে। এর পরে সিরাজগঞ্জ, গাইবান্ধা, বগুড়ার বিস্তীর্ণ চরাঞ্চল ঘুরে ২৭ জুলাই জামালপুরের সরিষাবাড়ীর ভাটারা ইউনিয়নের কৃষ্টপুর গ্রামের ঘনবসতিপুর্ন লোকালয়ে অবস্থান করছে।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭, ০১৭১৭ ৬৮ ১২ ১৪ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: