সর্বশেষ আপডেট : ৩ মিনিট ৩৭ সেকেন্ড আগে
শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

পানিও দেয়া হচ্ছে না তুরস্কের বন্দী সেনাদের

turkey20160725181814আন্তর্জাতিক ডেস্ক::
তুরস্কে হাজার হাজার বন্দী সেনার ওপর অমানবিক নির্যাতন করা হচ্ছে। বন্দী সেনাদের যৌন নির্যাতন, দীর্ঘ সময় ধরে খাবার না দেয়া এবং হাত-পা বেঁধে রাখাসহ বিভিন্নভাবে অমানবিক নির্যাতন করা হচ্ছে।

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল জানিয়েছে, তাদের কাছে বন্দী সেনাদের নির্যাতনের বিশ্বাসযোগ্য প্রমাণ রয়েছে। সংস্থাটির এক রিপোর্টে বলা হয়েছে, পুলিশ আটক বন্দীদের খাবার, পানি ও চিকিৎসা সেবা দিচ্ছে না এবং তাদের হাত-পা বেঁধে মারধর ও নির্যাতন করা হচ্ছে।

প্রায় ১০ হাজার বন্দীকে তালাবদ্ধ করে রাখা হয়েছে। এদের সঙ্গে খুব অমানবিক আচরণ করা হচ্ছে বলে মানবাধিকার সংস্থাটি উদ্বেগ প্রকাশ করেছে।

গত সপ্তাহে তুরস্কে আকস্মিক অভ্যুত্থানের ঘটনা ঘটে। তবে ওই অভ্যুত্থান প্রচেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর অভ্যুত্থানে অংশ নেয়া কয়েক হাজার সেনাকে আটক করে এরদোয়ান সরকার। ব্যর্থ অভ্যুত্থানের পর দেশটিতে তিন মাসের জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।

অভ্যুত্থানে ২শ’র বেশি মানুষ নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরো দেড় সহস্রাধিক।

বন্দী সেনাদের ওপর নির্যাতনের খবর, ছবি এবং ভিডিও গণমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার পর তুরস্ক সরকার এ বিষয়ে কোনো প্রতিক্রিয়া জানায়নি। সেনাদের ওপর অমানবিক নির্যাতনের বিষয়ে কর্তৃপক্ষ নিশ্চুপ।

বন্দী সেনাদের সঙ্গে কি কি ঘটছে সে বিষয়ে জানতে আইনজীবী, চিকিৎসক এবং আটককেন্দ্রের দায়িত্বে থাকা রক্ষীদের সঙ্গে কথা বলেছে মানবাধিকার সংস্থাটি।

সংস্থাটি জানিয়েছে, আঙ্কারা পুলিশ হেডকোয়ার্টার স্পোর্টস হল, আঙ্কারা বাসকেন্ট স্পোর্টস হল এবং রাইডিং ক্লাবে রাখা বন্দীদের ওপর অমানবিক নির্যাতন করা হচ্ছে। তারা সেখানে গিয়ে বন্দীদের ওপর নির্যাতনের প্রমাণ পেয়েছেন।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: