সর্বশেষ আপডেট : ৯ মিনিট ১৭ সেকেন্ড আগে
রবিবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

গুলেনের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রে প্রমাণ পাঠিয়েছে তুরস্ক

147593_1আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ব্যর্থ অভ্যুত্থানে ফেতুল্লাহ গুলেনের জড়িত থাকার প্রমাণ যুক্তরাষ্ট্রে পাঠিয়েছে তুরস্ক বলে জানিয়েছে দেশটির প্রধানমন্ত্রী বিনালি ইলদিরিম।

মঙ্গলবার পার্লামেন্ট ভবনে নিজ দলের সদস্যদের উদ্দেশে বক্তব্য রাখার সময় ইলদিরিম এতথ্য জানান বলে আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

ইলদিরিম বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে বসে এক ধর্মীয় নেতা (গুলেন) দেশে কাপুরুষোচিত ঘটনা ঘটিয়েছে। আবার কোনো সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালালে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।
তিনি বলেন, প্রমাণিত হয়েছে, ট্যাংকের শক্তির চেয়ে মানুষের শক্তি বড়। যারা অভ্যুত্থান চেষ্টা চালিয়েছে, তাদের চরম শাস্তি ভোগ করতে হবে।

তুরস্কের পাঠানো প্রমাণ কি গুলেনকে ফিরিয়ে দেওয়ার আনুষ্ঠানিক অনুরোধ হিসেবে দেওয়া হয়েছে, তা পরিষ্কার করেননি প্রধানমন্ত্রী। এর আগে তুরস্ক গুলেনকে ফেরত পাঠানোর জন্য যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি আহ্বান জানায়। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্র জানায়, যথাযথ প্রমাণ দিলে গুলেনকে তুরস্কের হাতে তুলে দেওয়ার বিষয়টি বিবেচনা করবে তারা।

এদিকে তুরস্কে ১৫,২০০ শিক্ষা কর্মকর্তা-কর্মচারীকে বরখাস্ত করা হয়েছে। ব্যর্থ অভ্যুত্থানের পর শুদ্ধি অভিযানের অংশ হিসেবে এ পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

তুরস্কে অভ্যুত্থান চেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর অভ্যুত্থান সমর্থনকারী সন্দেহে সরকারি চাকরিজীবীদের বরখাস্ত করা হচ্ছে। বিচার বিভাগ, পুলিশ বিভাগসহ বিভিন্ন বিভাগে কর্মরত প্রায় ৯ হাজার কর্মকর্তা-কর্মচারীকে বরখাস্ত করেছে তুর্কি সরকার।

মঙ্গলবার শিক্ষা কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বরখাস্ত করার বিষয়ে দেশটির শিক্ষা মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, তাদের সঙ্গে ফেতুল্লাহ গুলেনের যোগসূত্র রয়েছে।

তুর্কি সরকার অভিযোগ তুলেছে, শুক্রবারের অভ্যুত্থান চেষ্টার পরিকল্পনাকারী ফেতুল্লাহ গুলেন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভানিয়ায় স্বেচ্ছায় নির্বাসনে আছেন।

এদিকে, তুরস্কের উচ্চাশিক্ষা বোর্ড এক আদেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৫৭৭ ডিনকে পদত্যাগ করতে বলেছে। রাষ্ট্রীয় বার্তাসংস্থায় এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

তুর্কি প্রধানমন্ত্রী বিনালি ইলদিরিম গুলেন সমর্থকদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়ার ঘোষণা দেওয়ার পর শিক্ষা কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বরখাস্ত করা হলো। ইলদিরিম বলেন, আমি দুঃখিত, কিন্তু এ ধরনের সন্ত্রাসী সংগঠন (হিজমেত আন্দোলন) কোনো দেশের জন্য উপকারী হতে পারে না।

তিনি আরো বলেন, আমরা তাদের শেকড় এমনভাবে উপড়ে ফেলব, যেন কোনো গুপ্তঘাতক সন্ত্রাসী সংগঠন শান্তিপ্রিয় তুর্কিদের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করতে না পারে।

শুক্রবারের ব্যর্থ অভ্যুত্থানের পর তুরস্কে কয়েক হাজার পুলিশ ও সেনা সদস্য এবং সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীকে গ্রেপ্তার অথবা বরখাস্ত করা হয়েছে। বিমান বাহিনীর প্রাক্তন প্রধান জেনারেল একিন ওজতুর্কসহ কমপক্ষে দুই ডজন জেনারেলকে রিমান্ডে নেওয়া হয়। ওজতুর্ক তার বিরুদ্ধে আনা অভ্যুত্থান ষড়যন্ত্রের কথা অস্বীকার করেন।

অভ্যুত্থান চেষ্টায় জড়িতদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়ার অংশ হিসেবে ব্যাপক ধরপাকড় শুরুর পর জাতিসংঘসহ বিভিন্ন দেশ তুরস্ককে আইন ও মানবাধিকার লঙ্ঘন না করার আহ্বান জানিয়েছে।

মানবাধিকারবিষয়ক হাই কমিশনার জেইদ রা’আদ আল হুসেইন এক বিবৃতিতে বলেন, বিচারকদের গণ-বরখাস্ত অথবা অপসারণ গভীর হুঁশিয়ারির বিষয়। মৃত্যুদন্ড পুনর্বহালের ইস্যুকে ‘গভীর পরিতাপের বিষয়’ হিসেবে উল্লেখ করেন তিনি।

তুরস্কের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে দেওয়া তথ্যানুযায়ী, অভ্যুত্থান চেষ্টাকালে নিহত হয়েছেন ২৩২ জন এবং আহত হয়েছেন ১ হাজার ৫৪১ জন। তবে বেসরকারি গণমাধ্যমের প্রকাশিত খবরমতে, নিহতের সংখ্যা ২৬৫ জন।

এ বিভাগের অন্যান্য খবর

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: