সর্বশেষ আপডেট : ৩ মিনিট ১৬ সেকেন্ড আগে
মঙ্গলবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

‘বাবাকে বলেছিলাম পাস করাতে, তিনি প্রথম বানিয়েছেন’

full_419772763_1467188169নিউজ ডেস্ক: ভারতে গ্রেপ্তার ছাত্রী রুবি পুলিশ এবং সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘বাবাকে বলেছিলাম পাস করাতে, তিনি রাজ্যে প্রথম বানিয়েছেন!’

ভারতের বিহারে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় কলা বিভাগ থেকে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে ‘প্রথম’ হওয়া রুবি রাইকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। আর গ্রেপ্তারের পর রুবি সংবাদমাধ্যমের কাছে তার অভিভাবকদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছেন।

এর আগে চলতি বছরের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় বিহার রাজ্যে কলা বিভাগ থেকে প্রথম স্থান দখল করেন রুবি রাই। বিহারের প্রত্যন্ত বৈশালী জেলার বিষ্ণু রায় কলেজের ছাত্রী রুবির প্রথম স্থান দখলে সাড়া পড়ে পুরো রাজ্যে।

রুবির বেশকিছু সাক্ষাৎকারও প্রচারিত হয়েছিল সংবাদমাধ্যমগুলোতে। কিন্তু সম্প্রতি এক ভিডিও সাক্ষাৎকারে নিজের প্রধান বিষয় ‘পলিটিকাল সায়েন্সকে’ ‘প্রডিকেল সায়েন্স’ এবং এটি রান্না শেখায় মন্তব্য করে ফেঁসে যান রুবি।

আজতক টিভির প্রতিবেদনের এই ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গেলে বোর্ডের উদ্যোগে পুনরায় রুবির পরীক্ষা নেওয়া হয়। আর ওই পুনঃপরীক্ষায় চরমভাবে ব্যর্থ হলে প্রতারণার অভিযোগে রুবিকে কারাগারে পাঠানো হয় এবং কর্তৃপক্ষ তাঁর আগের ফল বাতিল করে।

পুনঃপরীক্ষার পরীক্ষকরা সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ‘টপার’ রুবির দক্ষতায় তারা হতবাক। রুবিকে ভারতের জনপ্রিয় কবি তুলসীদাস সম্পর্কে একটি রচনা লিখতে বলা হয়, তখন তিনি একটি মাত্র বাক্য লিখে বাকি খাতাটি সাদা রেখে দেন। আর একমাত্র বাক্যটি ছিল, ‘তুলসিজি প্রণাম’।

তার পরীক্ষকরা জানিয়েছেন, এ বছরের বোর্ডের পরীক্ষায় তুলসীদাসের ওপর এই প্রশ্নটিই ছিল। রুবির খাতা পরীক্ষা করে দেখা যায়, তিনি যথেষ্ট ভালোই লিখেছিলেন।

রুবি পরীক্ষকদের কাছে এটাও দাবি করেন, পরীক্ষার জন্য তিনি দুই বছর ধরে পড়েছেন, পরীক্ষাও দিয়েছেন। তিন মাস হয়ে গিয়েছে পরীক্ষার, তাই এ বিষয়ে তাঁর আর কিছু মনে নেই।

গত ৩ জুলাই বিহার বিদ্যালয় পরীক্ষা সমিতির দপ্তরে দুই ঘণ্টা ধরে পরীক্ষা নেওয়া হয় রুবির। বিশেষজ্ঞ কমিটি জানায়, কলা বিভাগের বিষয় নিয়ে প্রাথমিক জ্ঞানটুকুও নেই রুবির। বোর্ড প্রধান আনন্দ কিশোর জানান, বিশেষজ্ঞ কমিটির মতে, প্রথম হওয়ার যোগ্যতাই নেই রুবির মধ্যে। রুবির পরীক্ষার খাতার ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে। যাচাই করে দেখা হবে রুবি কি আদৌ পরীক্ষা দিয়েছিলেন, নাকি তাঁর হয়ে কেউ পরীক্ষায় বসেছিল।

এদিকে পরীক্ষায় জোচ্চুরির অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ার পর রুবিকে গত রোববার আদালতে হাজির করা হয় এবং বিচারক ৮ জুলাই পর্যন্ত তাঁকে কারাগারে রাখার নির্দেশ দেন বলে জানিয়েছে বিবিসি।

যদিও আদালতের এ সিদ্ধান্তের কড়া সমালোচনা হচ্ছে ভারতে। সমালোচকদের যুক্তি, রুবি অপ্রাপ্তবয়স্ক এবং তাঁকে কিশোর সংশোধনাগারে পাঠানো উচিত ছিল।

এদিকে হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, বিহারে এবারের উচ্চ মাধ্যমিকে বিজ্ঞান বিভাগে সর্বোচ্চ নম্বর পাওয়া সৌরভ শ্রেষ্ঠর বিরুদ্ধেও গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। কারণ পুনঃপরীক্ষায় সে এইচটুও (H2O)-এর মানে যে পানির সংকেত এটি বলতে পারেনি।

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: