সর্বশেষ আপডেট : ৬ ঘন্টা আগে
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬, খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ |

DAILYSYLHET

লন্ডন যাচ্ছেন খালেদা জিয়া, ফেরার পর পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা

zia_4hgনিউজ ডেস্ক::
বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া পবিত্র ঈদুল ফিতরের পর পরই লন্ডন যাচ্ছেন।লন্ডন থেকে এসে বিএনপির স্থায়ী ও নির্বাহীসহ দলের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করবেন বলে জানা গেছে।

১৯ মার্চ বিএনপির ষষ্ঠ জাতীয় কাউন্সিল অনুষ্ঠানের পর কয়েক ধাপে ৪২ টি পদের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। বাকি পদের বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। যে কারণে নতুন ও পুরনো কমিটি মিলিয়ে এক ধরনের বিভ্রান্তি দেখা দিয়েছে দলটির অভ্যন্তরে।

এদিকে যে সব পদ ঘোষণা করা হয়েছে তা নিয়ে দলের মধ্যে বিবেদ সৃষ্টি হয়েছে। অনেকের অভিযোগ কমিটি গঠনে যোগ্যতা ও সিনিয়র-জুনিয়র মানা হয়নি। এ নিয়ে নাকি বিএনপির সিনিয়র ভাইসচেয়ারম্যান তারেক রহমানের সঙ্গে বেগম খালেদা জিয়ার মনোমালিন্য দেখা দিয়েছে। এ জন্যই কমিটি গঠন থমকে আছে। তাই বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করে দলকে শক্তিশালী করতে তারেক রহমানের সঙ্গে পরমর্শ করতে লন্ডন যাচ্ছেন বেগম খালেদা জিয়া।

দলের আরেকটি সূত্র জানিয়েছে, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া নিয়মিত চিকিৎসার জন্য লন্ডন যাবেন। সেখানে তিনি চোখের চিকিৎসা করাবেন। এবং দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ও বেগম জিয়ার বড় পুত্র ও তার পরিবার তারেক রহমান লন্ডন আছেন সেখানে তার দেখা হবে। আর দেখা হলে অনেক বিষয়ে আলাপ- আলোচনা হতেই পারে।

কাউন্সিলের আগে নেতা-কর্মীদের মধ্যে ছিল ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা। কেন্দ্র থেকে তৃণমূলে ছিল চাঙ্গাভাব। কিন্তু কাউন্সিলের পরপরই সেই উৎসাহে ভাটা পড়তে শুরু করে। তিন মাস পার হলেও এখনো পূর্ণাঙ্গ কমিটি দিতে পারেনি দলটি। হতাশায় নেতা-কর্মীরা। তৃণমূলের পুনর্গঠন প্রক্রিয়াও বন্ধ। অঙ্গসংগঠন কিংবা ঢাকা মহানগর বিএনপির কমিটির পুনর্গঠন প্রক্রিয়া থমকে আছে। জনগুরুত্বপূর্ণ দাবি নিয়ে দলের রাজনৈতিক কোনো কর্মসূচিও নেই। নেতারা ব্যস্ত অভ্যন্তরীণ দলাদলিতে ও গ্রুপিং-তদবিরে। কেন্দ্রীয় কমিটিতে জায়গা পেতে যে যার মতো করে দৌড়ঝাঁপ চালাচ্ছেন।

দলীয় সূত্র জানায়, স্থায়ী কমিটি নিয়ে বিএনপিতে এখন স্নায়ুযুদ্ধ চলছে। নানাভাবে নেতাদের তদবির থেমে নেই। পদ প্রত্যাশী কয়েক নেতা ঘনিষ্ঠজনদের কাছে বলেছেন, ওই পদ না পেলে দল থেকে পদত্যাগ করবেন। সেখানে অন্য কেউ আসলে তাকেও রাজনীতি করতে দেবেন না। বিষয়টি বিএনপি চেয়ারপারসনের কানেও তুলেছেন কেউ কেউ। এ জন্য স্থায়ী কমিটি ঘোষণা নিয়েও অস্বস্তিতে বিএনপি প্রধান। কমিটি দিতে বিলম্ব হওয়ার এটাও একটি কারণ।

বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, খালেদা জিয়া স্বল্প সময়ের মধ্যে কমিটি দিয়ে দলকে সাংগঠনিকভাবে শক্তিশালী করবেন। একই সঙ্গে নেতা-কর্মী সমর্থকদের সুসংগঠিত করবেন। নিজেদের মধ্যে বিরাজমান আস্থাহীনতা ও সন্দেহ, সংশয় ও অবিশ্বাস দূর করে কমিটি গঠন করতে চান। তাছাড়া দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলনের বাইরে থাকা তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের মধ্যে আস্থা ফিরিয়ে ঐক্যবদ্ধ করে নতুন নির্বাচনের জন্য আন্দোলন করবেন। সব কিছু বিবেচনা করেই তিনি (খালেদা জিয়া) কমিটি গঠন করতে চান।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, কাউন্সিলে চেয়ারপারসনকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে কমিটির। তিনি এ নিয়ে কাজ করছেন। ইতিমধ্যে মহাসচিব, যুগ্ম মহাসচিবসহ বেশকিছু নাম ঘোষণা করা হয়েছে। আমরা এখনো স্থায়ী কমিটিতে কাজ করছি। মিটিংও হচ্ছে নিয়মিত। তবে তৃণমূলে পুনর্গঠন প্রক্রিয়া রমজানের কারণে স্থগিত আছে। এগুলোর জন্য কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে। কমিটি নিয়ে বিএনপিতে দলাদলি নেই। কমিটিতে পদ পেতে নেতা-কর্মীদের মধ্যে প্রতিযোগিতা থাকতেই পারে। এটাকে নেতিবাচকভাবে দেখার কোনো সুযোগ নেই।

বিএনপির আরেক স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, ইতিমধ্যে দলের চেয়ারপারসন, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান, মহাসচিবসহ আরও কিছু পদের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। আমি আশা করব, দলের চেয়ারপারসন দ্রুতই পুরো কমিটির ঘোষণা দেবেন।

দলের নির্ভরযোগ্য একটি সূত্র জানিয়েছে, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া লন্ডন থেকে এসে নিজেই স্থায়ী কমিটিসহ নির্বাহী কমিটির গুরুত্বপূর্ণ পদে নতুন নেতাদের নাম ঘোষণা করবেন।পূর্বপশ্চিম

নোটিশ : ডেইলি সিলেটে প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি -সম্পাদক

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

২০১১-২০১৬

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মকিস মনসুর আহমদ, প্রধান সম্পাদক : লিয়াকত শাহ ফরিদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : কে এ রহিম, নির্বাহী সম্পাদক: মারুফ হাসান
কার্যালয়: ব্লু ওয়াটার শপিং সিটি, ৯ম তলা, জিন্দাবাজার, সিলেট-৩১০০
ফোন : ০৮২১-৭২৬ ৫২৭ (নিউজ), ০১৭১২ ৮৮ ৬৫ ০৩ (সম্পাদক)
ই-মেইল: dailysylhet@gmail.com

Developed by: